Advertisement
০৫ মার্চ ২০২৪
Suvendu Adhikari

Suvendu Adhikari: মহারাষ্ট্র, ঝাড়খণ্ড হয়ে বাংলায় ঢুকবে সরকার ভাঙনের হাওয়া, দাবি শুভেন্দুর, পাল্টা তৃণমূলের

মহারাষ্ট্রের মতোই ঝাড়খণ্ড ও বাংলাতেও ঢুকে পড়তে পারে সরকার ভাঙনের হাওয়া। এমনটাই দাবি করলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।

রাজভবনের বাইরে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী ও ইংরেজবাজারের বিধায়ক শ্রীরূপা মিত্র চৌধুরী।

রাজভবনের বাইরে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী ও ইংরেজবাজারের বিধায়ক শ্রীরূপা মিত্র চৌধুরী। নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৯ জুন ২০২২ ২১:০৪
Share: Save:

মহারাষ্ট্র, ঝাড়খণ্ড হয়ে বাংলায় ঢুকবে সরকার ভাঙনের হাওয়া। আবার এমন দাবি করলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। যদিও শুভেন্দুর ওই দাবিকে কোনও রকম ভাবে গুরুত্ব দিতে নারাজ শাসকদল তৃণমূল। দলের মুখপাত্র তাপস রায় জানিয়েছেন, বিরোধী দলনেতার ওই দাবির কোনও মূল্য নেই তাঁদের কাছে।

বুধবার সন্ধ্যায় রাজভবনে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিল বিজেপির একটি প্রতিনিধি দল। ওই দলে ছিলেন শুভেন্দু, অগ্নিমিত্রা পাল, শঙ্কর ঘোষ, বঙ্কিম ঘোষ, রবীন্দ্রনাথ মাইতি-সহ রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক প্রতাপ বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজভবন থেকে বেরিয়ে কার্যত বক্তৃতাই করেন শুভেন্দু। সেখানে তিনি মন্তব্য করেন, ‘‘২০২৪ সালে লোকসভার সঙ্গে রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন হবে।’’ তার পরেই তাঁর সংযোজন, ‘‘১৫ দিন আগেও কেউ কি ভেবেছিলেন যে, মহারাষ্ট্রে সরকারের এমন অবস্থা হবে? তখন মহাবিকাশ আঘাডী জোটের সরকার চলছিল। কিন্তু ১৫ দিনেই পালাবদল হয়ে গেল। যে কোনও সময় দেবেন্দ্র ফডনবীশের নেতৃত্বে সরকার গঠন হবে। একনাথজিও সেই সরকারে থাকবেন।’’

এখানেই থামেননি বিরোধী দলনেতা। তিনি বলেন, ‘‘কে বলতে পারে আগামী দিনে সরকার ভাঙনের হাওয়া অন্য রাজ্যে প্রবেশ করবে না! সেই হাওয়া মহারাষ্ট্র থেকে ঝাড়খণ্ড হয়ে বাংলায় প্রবেশ করতেই পারে।’’ একই সঙ্গে তিনি আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে বাংলায় ৩৫৬ ধারা জারির পক্ষেও সওয়াল করেন।

তৃণমূল যদিও শুভেন্দুর এই মন্তব্যকে গুরুত্ব দিতে চাইছে না। তাপসের কথায়, ‘‘বিরোধী দলনেতার কথার কোনও মূল্য আছে! ওঁর মন্তব্যকে কোনও গুরুত্ব দেওয়ার প্রয়োজন দেখছি না।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE