Advertisement
০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Tribal Group

অধিকার হরণের প্রতিবাদ, বাংলা-সহ পাঁচ রাজ্যে রেল, বাসের চাকা স্তব্ধ করার ডাক আদিবাসীদের

আদিবাসীদের নেতা সালখন জানিয়েছেন, ৩০ জানুয়ারির মধ্যে যদি সরকার দাবিদাওয়া পূরণ না করে, তা হলে ফেব্রুয়ারি থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য রেল ও বাসের চাকা অচল করে দেওয়া হবে।

পুরুলিয়া শহরে আদিবাসী নেতৃত্বের সাংবাদিক বৈঠক।

পুরুলিয়া শহরে আদিবাসী নেতৃত্বের সাংবাদিক বৈঠক। নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
পুরুলিয়া শেষ আপডেট: ২৫ জানুয়ারি ২০২৩ ১৬:১২
Share: Save:

আবার জঙ্গলমহল-সহ পাঁচ রাজ্যকে অচল করে দেওয়ার ডাক। আবার অবরোধের হুঙ্কার। ঝাড়খণ্ডের গিরিডির পরেশনাথ পাহাড়কে জৈন ধর্মাবলম্বীদের দিয়ে দেওয়ার প্রতিবাদে পাঁচ রাজ্যে অনির্দিষ্ট কালের জন্য রেল ও রাস্তা রোকোর ডাক দেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন আদিবাসী নেতৃত্ব। তাঁদের দাবি, ৩০ জানুয়ারির মধ্যে দাবি পূরণ না হলে বাংলা, বিহার, অসম, ঝাড়খণ্ড এবং ওড়িশায় রেল ও রাস্তা অবরোধ করা হবে।

Advertisement

কিছু দিন আগেই কুড়মি সমাজের রেল রোকো অভিযানের ফলে বিপর্যস্ত হয়েছিল জনজীবন। এ বার আবার রেল ও বাসের চাকা অনির্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ করে দেওয়ার হুঁশিয়ারি দিলেন আদিবাসী সেঙ্গেল অভিযানের নেতা সালখন মুর্মু। বুধবার পুরুলিয়া শহরে সাংবাদিক সম্মেলন করে এ কথা জানিয়েছেন তিনি। সালখান বলেন, ‘‘ঝাড়খণ্ড সরকার আদিবাসীদের মারাংবুরু পরেশনাথ পাহাড় জৈন ধর্মের মানুষের হাতে তুলে দিতে চাইছে। তা অবিলম্বে আদিবাসীদের ফিরিয়ে দিতে হবে। কারণ আদিবাসীরাই প্রকৃতির পূজারী।’’

পাশাপাশি, সারনা ধর্ম কোড চালু করারও দাবি জানিয়েছেন সালখান। আগামী ৩০ জানুয়ারির মধ্যে যদি সরকার তাঁদের দাবিদাওয়া পূরণ না করে তাহলে ফেব্রুয়ারি মাস থেকেই অনির্দিষ্ট কালের জন্য রেল ও বাসের চাকা অচল করার হুঁশিয়ারি দেন তিনি। শুধু জঙ্গলমহলই নয়, বাংলা, বিহার, ঝাড়খণ্ড, অসম এবং ওড়িশায় রেল ও রাস্তা অবরোধ হবে। সালখনের দাবি, সংগঠনের যা শক্তি তাতে এই পাঁচ রাজ্যে রেল ও রাস্তা অচল করে দেওয়ার ক্ষমতা তাঁদের আছে। তবে ফেব্রুয়ারির কোন দিন থেকে অবরোধ শুরু হবে, তা খোলসা করতে চাননি তিনি। তাঁর কথায়, ‘‘কোন দিন থেকে অবরোধ হবে, তা এখনই জানাচ্ছি না।’’

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.