Advertisement
২৮ নভেম্বর ২০২২

‘তথ্য বিকৃতি’র অভিযোগ এনে তিনটি বাংলা দৈনিকের বিরুদ্ধে শাসক দলের নোটিস

সব সংবাদপত্রেই মুখ্যমন্ত্রী বুধবারের বক্তব্য এবং বিরোধীদের প্রতিক্রিয়া গুরুত্ব দিয়ে প্রকাশিত হয়েছে।

ছবি: পিটিআই।

ছবি: পিটিআই।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৮ জুন ২০১৯ ০৩:৪৭
Share: Save:

বিজেপির রাজনীতির বিরুদ্ধে কংগ্রেস ও সিপিএমের সহযোগিতা চেয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বুধবার বিধানসভায় যে আবেদন করেছিলেন তার ‘অপব্যাখ্যা’ করা হয়েছে বলে কয়েকটি সংবাদপত্রের বিরুদ্ধে বৃহস্পতিবার অধিকারভঙ্গের নোটিস জমা দিয়েছে শাসকদল।

Advertisement

শাসক তৃণমূলের অভিযোগ, বিভিন্ন সংবাদপত্রে মুখ্যমন্ত্রী সিপিএম ও কংগ্রেসের সঙ্গে জোট তৈরি করতে চান বলে ইঙ্গিত করা হয়েছে। এ সম্পর্কে বিরোধীদের প্রতিক্রিয়ার ভিত্তিতেও খবর লেখা হয়েছে। এটা ‘তথ্য বিকৃতি’। কারণ মুখ্যমন্ত্রী সাম্প্রতিক রাজনীতির পরিপ্রেক্ষিতে একসঙ্গে প্রতিবাদের কথা বলেছেন। তিনি কোনও জোটের কথা বলেননি বলে দাবি শাসকদলের।

বিধানসভা সূত্রে খবর, তিনটি বাংলা দৈনিককে বেছে নিয়ে এই নোটিস জমা দেওয়া হয়েছে। যদিও এদিন রাত পর্যন্ত স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় এ নিয়ে কিছু জানাতে পারেননি। সব সংবাদপত্রেই মুখ্যমন্ত্রী বুধবারের বক্তব্য এবং বিরোধীদের প্রতিক্রিয়া গুরুত্ব দিয়ে প্রকাশিত হয়েছে। সেক্ষেত্রে মাত্র তিনটি সংবাদপত্রকে নোটিস দেওয়ার জন্য বেছে নেওয়া হল কেন? তার ব্যাখ্যা দিয়ে তৃণমূলের পরিষদীয় দলের এক শীর্ষনেতা জানান, যে সব সংবাদপত্র খবরটি প্রথম পাতায় ছেপেছে তাদের বিরুদ্ধেই এই অভিযোগ আনা হবে। যে সব সংবাদপত্রে ওই খবর ভিতরের পাতায় ছাপা হয়েছে, বুঝতে হবে তারা খবরটিকে ‘যথেষ্ট’ গুরুত্ব দেয়নি। তাই তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হচ্ছে না।

মুখ্যমন্ত্রী বুধবার বিধানসভায় বলেছিলেন, ‘‘মান্নানভাই ( কংগ্রেসের আবদুল মান্নান) সুজনদা ( সিপিএমের সুজন চক্রবর্তী) আমাদের এক সঙ্গে আসা দরকার। সিপিএম আমার সঙ্গে ঝগড়া করতে পারে। কংগ্রেস আমার সঙ্গে ঝগড়া করতে পারে। কিন্তু দেশটা ওরা ভেঙে তছনছ করে দেবে তা আমি বিশ্বাস করি না।’’ তাঁর এই বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতেই কংগ্রেস ও সিপিএমের পরিষদীয়নেতা ও দলীয় নেতারা তৃণমূলের সঙ্গে কোনও রকম জোটে যাওয়ার সম্ভাবনা খারিজ করে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছিলেন। বিভিন্ন সংবাদপত্র যা প্রকাশ করেছে।

Advertisement

বৃহস্পতিবার আরও একটি অধিকারভঙ্গের নোটিস দেওয়া হয় বামেদের বিরুদ্ধে। এদিন বিধানসভায় পরিষদীয় প্রতিমন্ত্রী তাপস রায় যখন ‘পয়েন্ট অফ ইনফর্মেশন’ তুলে সংবাদপত্রে প্রকাশিত মুখ্যমন্ত্রীর বুধবারের বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিতে যান তখন তার বৈধতা নিয়ে সরব হয় সিপিএম ও অন্য বাম বিধায়েকরা। পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়। স্পিকারকে ঘিরে বিক্ষোভ শুরু করেন তাঁরা। এ সবের বিরুদ্ধেই অধিকারভঙ্গের নোটিস দেওয়া হচ্ছে সিপিএমের সুজন চক্রবর্তীসহ কয়েকজনের নামে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.