Advertisement
২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Bilawal Bhutto Zardari

লাদেনের সঙ্গে তুলনা! রাষ্ট্রপুঞ্জে বেনজির-পুত্রের বেনজির ব্যক্তি আক্রমণ মোদীকে, প্রতিবাদ দিল্লির

রাষ্ট্রপুঞ্জে বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর ২০০১ সালের সংসদ হামলার ঘটনা এবং লাদেনকে আশ্রয় দেওয়ার প্রসঙ্গ তুলে বিঁধেছিলেন ইসালামাবাদকে। তারই জবাবে মোদীকে নিশানা করেন বিলাবল।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ব্যক্তি আক্রমণ পাক বিদেশমন্ত্রী বিলাবলের।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ব্যক্তি আক্রমণ পাক বিদেশমন্ত্রী বিলাবলের। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
নিউ ইয়র্ক শেষ আপডেট: ১৬ ডিসেম্বর ২০২২ ১৬:৩৯
Share: Save:

রাষ্ট্রপুঞ্জে দাঁড়িয়ে ব্যক্তি আক্রমণের বিরল নজির গড়লেন পাকিস্তানের বিদেশমন্ত্রী বিলাবল ভুট্টো জারদারি। সন্ত্রাস প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে জঙ্গি সংগঠন আল কায়দার প্রধান ওসামা বিন লাদেনের তুলনা করলেন তিনি।

প্রাক্তন পাক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি এবং সে দেশের নিহত প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টোর ছেলে বিলাবল শুক্রবার রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে যোগ দিতে গিয়ে বলেন, ‘‘ওসামা বিন লাদেন নিহত হয়েছেন। কিন্তু গুজরাতের কসাই এখনও জীবিত। তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।’’ পাক মন্ত্রীর ওই মন্তব্যের তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে ভারতীয় বিদেশ মন্ত্রক। বিদেশ মন্ত্রকের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘পাকিস্তানের বিদেশমন্ত্রীর মন্তব্যে তাঁর মানসিক দেউলিয়াপনা এবং দায়িত্বজ্ঞানহীনতা প্রকাশ পেয়েছে।’ নয়াদিল্লির পাক দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ দেখায় বিজেপির যুব মোর্চা।

বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদের সভায় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর ২০০১ সালের সংসদ হামলার ঘটনা এবং আল কায়দা প্রধান ওসামা বিন লাদেনকে অ্যাবোটাবাদে আশ্রয় দেওয়ার প্রসঙ্গ তুলে বিঁধেছিলেন ইসালামাবাদকে। তারই প্রতিক্রিয়ায় শুক্রবার এই মন্তব্য করেন পাকিস্তান পিপলস পার্টির নেতা বিলাবল। আমেরিকার মাটিতে দাঁড়িয়ে গুজরাত দাঙ্গার প্রসঙ্গ তুলে পাক বিদেশমন্ত্রীর মন্তব্য, ‘‘ভারতের প্রধানমন্ত্রী না হওয়া পর্যন্ত ওঁর এই দেশের মাটিতে প্রবেশাধিকার ছিল না।’’

প্রসঙ্গত, গোধরা-পরবর্তী দাঙ্গার পরে গুজরাতের তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী মোদীর ভিসার আবেদন নাকচ করেছিল ওয়াশিংটন। সেই প্রসঙ্গই তুলে ধরেন বিলাবল। পাশাপাশি, আরএসএসের সঙ্গে হিটলারের কুখ্যাত খুনে বাহিনী এসএস গ্রুপের তুলনাও করেন তিনি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE