×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৭ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

ট্রাম্পের শুল্ক-তিরের নিশানা এয়ারবাস

সংবাদ সংস্থা
সান ফ্রান্সিসকো১০ এপ্রিল ২০১৯ ০১:৪৪

আমেরিকা ও চিনের মধ্যে বাণিজ্য যুদ্ধের ঝাঁঝ কমার ইঙ্গিত মিলতে শুরু করেছে। কিন্তু এর মধ্যে সেই বাণিজ্য নিয়েই নতুন করে উত্তেজনা শুরু হল আমেরিকা ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) মধ্যে। এ বার সমস্যার কেন্দ্রে বিমান সংস্থা বোয়িং ও এয়ারবাসের ১৪ বছরের পুরনো রেষারেষি। আমেরিকার বক্তব্য, এয়ারবাসকে ইইউ ভর্তুকি দেওয়া বন্ধ না করলে তাদের ১,১০০ কোটি ডলারের পণ্যে আমদানি শুল্ক চাপানো হবে। ইইউয়ের পাল্টা দাবি, বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থায় (ডব্লিউটিও) চলা মামলাতেই এ নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হওয়া উচিত।

ওয়াশিংটনের দীর্ঘদিনের অভিযোগ, এয়ারবাসকে উঁচু ভর্তুকি দিচ্ছে ইইউ। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে আমেরিকা। আবার বোয়িং সম্পর্কে একই অভিযোগ রয়েছে ইইউয়ের। এ নিয়ে ডব্লিউটিওর দ্বারস্থ হয় দু’পক্ষ। এই আইনি লড়াইয়ে শীঘ্রই রায় দিতে পারে ডব্লিউটিও। কিন্তু তার আগেই আমেরিকা জানাল, ইইউ থেকে আসা বিমান যন্ত্রাংশ, হেলিকপ্টার, ডেয়ারি পণ্য-সহ বেশ কয়েকটি সামগ্রীতে শুল্ক চাপাবে তারা। এর আগে অ্যালুমিনিয়াম ও ইস্পাতের পণ্যে তা চাপানো হয়েছিল।

Advertisement
Advertisement