• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

এ বার বেশি সঙ্কোচনের হুঁশিয়ারি এসঅ্যান্ডপি-র

GDP
প্রতীকী ছবি।

চলতি অর্থবর্ষে ভারতের অর্থনীতির বড় সঙ্কোচনের পূর্বাভাস আগেই দিয়েছিল মুডি’জ়, ফিচ, ইন্ডিয়া রেটিংস, ক্রিসিলের মতো মূল্যায়ন সংস্থা। এ বার সঙ্কোচনের পূর্বাভাস বাড়াল আর এসঅ্যান্ডপি গ্লোবাল রেটিংসও। সোমবার তারা জানিয়েছে, এ বছর দেশের অর্থনীতি সরাসরি ৯% সঙ্কুচিত হতে পারে। আগে ৫% সঙ্কোচনের ইঙ্গিত দিয়েছিল তারা। এপ্রিল-জুনে দেশের জিডিপি ২৩.৯% কমেছে। 

মূল্যায়ন সংস্থাটির বক্তব্য, অগস্টে দেশে দৈনিক করোনা সংক্রমণ ৭০,০০০ ছুঁয়েছিল। খুব কম সময়ে তা ৯০,০০০ পার করেছে। সংক্রমণে যতদিন না বাঁধ দেওয়া যাচ্ছে ততদিন ক্রেতারা কেনাকাটা থেকে হাত গুটিয়ে থাকবেনই। ফলে ঘুরে দাঁড়াতে সমস্যা হবে ব্যবসার। বাড়বে না বিনিয়োগ। আর তাই অর্থনীতির ঘুরে দাঁড়াতে বেশ সময় লাগবে। বিশেষ করে ছোট শিল্প এবং অসংগঠিত ক্ষেত্রকে অতিমারি যে ভাবে ধাক্কা দিয়েছে, তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে এসঅ্যান্ডপি। তারা বলেছে, এই অবস্থায় সরকারি ত্রাণ হয়তো কেনাকাটাতে কিছুটা গতি ফেরাতে পারত। কিন্তু কোষাগার এবং ঘাটতির যা পরিস্থিতি তাতে সরকারের পক্ষেও এ ব্যাপারে নতুন কিছু করা কঠিন। এসঅ্যান্ডপি-র দাবি, এখনও পর্যন্ত কেন্দ্র যে ত্রাণ দিয়েছে তা আদতে জিডিপির ১.২%। 

তবে রিপোর্টে জানানো হয়েছে, দ্রুত করোনার প্রতিষেধক বাজারে এলে তা অর্থনীতিকে ঘুরে দাঁড়াতে সাহায্য করবে। আর এ বছরের নিচু ভিতের উপরে দাঁড়িয়ে পরের অর্থবর্ষে ১০% বৃদ্ধির মুখ দেখতে পারে ভারত। 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন