• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

হাতে লেখা রূপা, মৃতের পরিচয় সন্ধানে জানা গেল ওই নামে নিখোঁজ ৪০ জন!

Murder
প্রতীকী ছবি

এক হাতে লেখা ‘রূপা’। অন্য হাতে আঁকা দু’টি ‘লভ’ চিহ্ন। শরীরের অন্যান্য অংশ মাছে খুবলে নেওয়ায় দেহটি যে কার, তা বোঝার উপায় নেই।

ফলে বুধবার বাগবাজার ঘাটে বস্তাবন্দি অবস্থায় এক মহিলার দেহ উদ্ধারের পরেও এখনও তাঁর পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি। যদিও পুলিশ নিশ্চিত, ওই মহিলাকে খুন করার পর তাঁর দেহ বস্তায় বন্দি করে গঙ্গায় ফেলে দেওয়া হয়েছিল। তার বয়স আনুমানিক তিরিশের কাছাকাছি।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই মহিলার হাতের ট্যাটুর সূত্র ধরেই তদন্ত প্রক্রিয়া এগিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। এক তদন্তকারী জানান, রূপা নামটি ওই মহিলার হতে পারে। ওই নামে কেউ নিখোঁজ রয়েছেন কি না, রাজ্যের বিভিন্ন থানায় খোঁজ নিয়ে জানা যায় গিয়েছে, রূপা নামে এখনও পর্যন্ত ৪০ জন নিখোঁজ রয়েছেন। ইতিমধ্যে এক জনের পরিবার কলকাতা পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগও করেছে।

আরও পড়ুন: হাতে ট্যাটু, পরনে শাড়ি, বাগবাজার ঘাট থেকে উদ্ধার মহিলার বস্তাবন্দি পচাগলা দেহ​

আরও পড়ুন: বছরে ১৭ কোটির খাবার! অসন্তুষ্ট স্পিকার, সর্বসম্মতিতে ভর্তুকি উঠে যাচ্ছে সংসদের ক্যান্টিনে​

গত বুধবার সকালে গঙ্গায় ভেসে আসা বস্তাটিকে দেখে সন্দেহ হয় স্থানীয় বাসিন্দাদের। তাঁরাই পুলিশে খবর দেন। উত্তর বন্দর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখে, বস্তার মধ্যে এক মহিলার দেহ রয়েছে। তবে মাথার অংশে মাংস নেই, একেবারে খুলি। প্রাথমিক ভাবে পুলিশের অনুমান, ওই মহিলাকে খুন করে বস্তায় ঢোকানো হয়েছে। মহিলার দু’হাতেই ট্যাটু করা রয়েছে। মহিলার পরনে ছিল হলুদ আর সবুজ রঙের শাড়ি।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন