×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০১ অগস্ট ২০২১ ই-পেপার

তারকা প্রার্থীদের নম্বর পোস্ট করে মানুষকে তাঁদের সমস্যা জানানোর পরামর্শ ইন্দ্রাশিসের

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২৬ এপ্রিল ২০২১ ১৮:১৩
ইন্দ্রাশিস আচার্য।

ইন্দ্রাশিস আচার্য।

একটি পোস্টে সমস্ত দলের রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বের যোগাযোগ নম্বর। তালিকার শুরুতে লেখা কয়েকটি কথা, ‘করোনায় ভয় কিসের? আপনার পাশে মানুষের কাজ করার জন্য প্রাণ আনচান করা নেতারা! মাস্ক, স্যানিটাইজার, রক্ত, অক্সিজেন, অ্যাম্বুলেন্সের জন্য এক্ষুণি ফোন করুন...’। জনৈক নেটাগরিকের এমনই একটি পোস্ট সম্প্রতি শেয়ার করেছেন ইন্দ্রাশিস আচার্য। সঙ্গে ক্যাপশনে নিজের মতামতও স্পষ্ট করেছেন।

কার কার নাম এবং নম্বর রয়েছে তালিকায়? শুরুতেই জ্বলজ্বল করছেন মুকুল রায়। রয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী, রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়, বাবুল সুপ্রিয়। তার পরেই পরপর তারকা প্রার্থীদের নাম। রাজ চক্রবর্তী, কৌশানী মুখোপাধ্যায়, জুন মলিয়া, কাঞ্চন মল্লিক, সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায়, রুদ্রনীল ঘোষ, শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়, যশ দাশগুপ্ত--- কেউ বাদ যাননি। সঙ্গে পরিচালকের ক্যাপশন, ‘যাঁরা যাঁরা মানুষের জন্য কাজ করবেন কিন্তু করে উঠতে পারছিলেন না বলে অনুযোগ করেছিলেন, তাঁদের নম্বর, যোগাযোগের বিস্তারিত তথ্য ছড়িয়ে দেওয়া হোক। এত বড় সুযোগ তো আর পাবেন না’।

এ ভাবেই কি বাকিদের মতো তিনিও কটাক্ষে বিঁধলেন রাজনীতিতে যোগ দেওয়া টলি তারকাদের? নাকি ব্যঙ্গ করলেন সেই সব তারকাদের, যাঁরা কাজ করতে না পারার দোহাই দিয়ে নির্বাচনের আগে দল বদলালেন? আনন্দবাজার ডিজিটালের কাছে পরিচালকের সাফ জবাব, ‘‘কাউকে কটাক্ষ, ব্যঙ্গ কিচ্ছু করিনি। যাঁরা চেয়েও কাজ করে উঠতে পারছিলেন না তাঁদের সাহায্য করেছি মাত্র। এমন ভয়ঙ্কর দিনে তাঁরা যদি সত্যিই মানুষের কাজে আসতে পারেন তাহলে মানুষেরও উপকার। তাঁরা এবং তাঁদের দলও প্রচার পাবে।’’ ইন্দ্রাশিসের দাবি, তিনি কখনও, কোনও ব্যক্তিকে সম্পূর্ণ না দেখে মন্তব্য করেন না। তাঁর মতে, ‘‘সত্যিই এঁরা হয়তো সুযোগ পেলে কাজ করবেন। দেখাই যাক না কী করেন।’’ সবার সমস্ত পদক্ষেপ দেখে তার পর মুখ খুলবেন, এমনটাও জানিয়েছেন তিনি।

Advertisement
ইন্দ্রাসিশের ফেসবুক পোস্ট।

ইন্দ্রাসিশের ফেসবুক পোস্ট।


নিজের স্বপক্ষে ইন্দ্রাশিস ক্যাপশনে এও বলেছেন, ‘কে কেমন সাড়া দিলেন তারও বিস্তারিত খবর যেন সেই পেজ থেকে পাওয়া যায়’। তাঁর যুক্তি, তা হলেই প্রত্যেকের প্রকৃত অবস্থান সামনে আসবে। তালিকায় বহু তারকার নাম রয়েছে। ভবিষ্যতে এঁদের সঙ্গে কাজ করতে হবে পরিচালককে। শেয়ার করা পোস্ট তখন তিক্ততার কারণ হয়ে দাঁড়াবে না তো? ইন্দ্রাশিসের কথায়, ‘‘অতিমারি প্রতি মুহূর্তে বাড়ছে। এদিকে তার সঙ্গে লড়াইয়ের হাতিয়ারের প্রচণ্ড অভাব। এঁরা প্রত্যেকে প্রভাবশালী। এক মাত্র এঁরাই পারেন সাধারণের পাশে দাঁড়াতে। তাই এঁদের নম্বর ভাগ করে নিয়েছি।’’ তাঁর দাবি, তিনি তির্যক দৃষ্টিভঙ্গী নিয়ে এই পোস্ট শেয়ার করেননি।

Advertisement