Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

শ্যুটে ‘কাট’ বলার পরও কাঁদছেন নুসরত, ছুটে এলেন পরিচালক

মুম্বইয়ে, পরিচালক বিশাল ফুরিয়ার ছবি ‘ছোরি’র শ্যুটিং করছিলেন নুসরত।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৯ ডিসেম্বর ২০২০ ২০:৪২
নুসরত ভারুচা।

নুসরত ভারুচা।

ভালো শট দিয়ে আবেগে ভাসলেন বলিউড অভিনেত্রী নুসরত ভারুচা। ছবির শ্যুটিংয়ের শেষে পরিচালককেই ছুটে আসতে হল নায়িকাকে সামলাতে।

মুম্বইয়ে, পরিচালক বিশাল ফুরিয়ার ছবি ‘ছোরি’র শ্যুটিং করছিলেন নুসরত।ভয়ের ছবি। তাই আগে থেকেই কিছুটা টেনশনে ছিলেন অভিনেত্রী। নায়িকার কথায়, ‘আমি একটু ভীতু।ভুতের সিনেমা দেখতে ইচ্ছে করে ঠিকই কিন্তু, হরর মুভির বেশিরভাগটাই দেখি দু’হাতে মুখ ঢেকে।’ তবে যে শট দিতে গিয়ে কেঁদে ফেলেছিলেন নায়িকা সেটি কোনও ভয়ের দৃশ্য ছিল না। বরং বেশ গভীর আর আবেগঘন একটি দৃশ্যেই অভিনয় করছিলেন তিনি।কিন্তু, কান্নার দৃশ্যের শট সম্পূর্ণ হওয়ার পরও দেখা গেল কান্না থামতেই চাইছে না নায়িকার। একটি সাক্ষাৎকারে নুসরত জানিয়েছেন, ‘‘হ্যাঁ, এটা ঠিকই যে, ছবির সেটেই আমি কান্নায় ভেঙে পড়েছিলাম। এমনই কান্না যে পরিচালক কাট বলার পরও থামতে পারিনি।আমাকে ওভাবে কাঁদতে দেখে পরিচালক ছুটে আসেন।’’

আরও পড়ুন: জয় হল মহিলা পুরোহিতের, ‘ইন্ডিয়ান প্যানোরামা’-তে ‘ব্রহ্মা জানেন গোপন কম্মটি’

Advertisement

কেন কান্না তার কারণ জানতে চাওয়ায় নুসরত বলেছেন, ‘‘জানি না ঠিক কী হয়েছিল, এতদিনের বন্দিদশা থেকে মুক্তির ক্লান্তি না কি নিজের সবচেয়ে ভালটা দিতে পারার আবেগ। আমি কান্না থামাতেই পারছিলাম না।’’

আসলে স্বভাবে ভীতু নুসরত-এর কাছে ভয়ের ছবি ‘ছোরি’র কাজটা নেওয়াই ছিল যথেষ্ট চ্যালেঞ্জিং। অতিমারি পরিস্থিতিতে এতদিন পর কাজ শুরু করে সেই চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে নিজের সেরাটা দিতে পেরেই আর নিজেকে সামলাতে পারেননি নুসরত।

আরও পড়ুন: হাসপাতালে তৈমুরকে দেখতে এসে তার নাম নিয়ে সমালোচনা, বলি তারকাকে নিয়ে ক্ষুব্ধ করিনা

প্রসঙ্গত, 'ছোরি' সিনেমাটি মরাঠি হিট ছবি 'লাপাছাপি'-র হিন্দি রিমেক। প্রাচীন সামাজিক উপকথার উপর তৈরি ওই ছবির গল্প ঘুরেছে এক অন্তঃসত্ত্বার নিজের সন্তানের জন্য অশুভ শক্তির সঙ্গে লড়াই করার বিষয় নিয়ে।এর আগে নুসরত কাজ করেছেন হনসল মেহতার খেলাধুলো সংক্রান্ত সিনেমা 'ছলাং'-এ।ছবিতে তাঁর সহ অভিনেতা ছিলেন রাজকুমার রাও।

আরও পড়ুন

Advertisement