Advertisement
২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Cold and Cough

ঋতু পরিবর্তনের সময় সর্দি-কাশির কবল থেকে দ্রুত মুক্তি দেবে গুড় চা, কী ভাবে বানাবেন?

ঠান্ডা লাগলে একটু বারে বারে চা খেতে ইচ্ছা করে। তবে সেই চা যদি গুড় দিয়ে তৈরি করা যায়, তা হলে আর চিন্তা নেই।

symbolic image.

সর্দি-কাশি কমাতে ভরসা হতে পারে গুড় চা। ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ০২ ডিসেম্বর ২০২৩ ১১:৫৮
Share: Save:

শহরে শীতের আসার সময় হয়ে গেল। ডিসেম্বরের মাঝামাঝি শীতের সঙ্গে বাঙালির দেখা হবে বলেই মনে করা হচ্ছে। কিন্তু শীত আসুক না আসুক, সর্দি-কাশি কিন্তু পুজোর পর থেকে জাঁকিয়ে বসেছে। হাঁচি-কাশি, নাকটানার শব্দে চারিদিক মুখর। মরসুম পরিবর্তনের সময় ঠান্ডা লাগার সমস্যা নতুন নয়, কিন্তু সেটা এড়িয়ে গেলে চলবে না। বরং গুরুত্ব দিয়ে দেখতে হবে। ওষুধ তো খাবেনই। সেই সঙ্গে ঘরোয়া টোটকাও কিন্তু মন্দ নয় দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠার ক্ষেত্রে।

ঠান্ডা লাগলে একটু বাড়ে বাড়ে চা খেতে ইচ্ছা করে। তবে সেই চা যদি গুড় দিয়ে তৈরি করা যায়, তা হলে আর চিন্তা নেই। গুড় এমনিতেই প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তোলে। ফলে সর্দি-কাশির সঙ্গে লড়াই করা অনেক বেশি সহজ হয়ে যায়। গুড়ে ম্যাগনেশিয়াম, পটাশিয়াম, ফসফরাসের মতো উপাদান ঠাসা রয়েছে গুড়ে। ফলে শীতকালে সুস্থ থাকতে গুড়ের উপর ভরসা রাখা যায়। কী ভাবে বানাবেন এই গুড় চা?

দু’কাপ মতো জলে গুড়, তুলসির বীজ, আদা কুচি, গোলমরিচ সব একসঙ্গে দিয়ে ফুটিয়ে নিন। ধোঁয়া ওঠা অবস্থায় খেতে হবে। তবেই স্বস্তি পাবেন। খাওয়ার আগে এক বার ছেঁকে নিতে পারেন। গলাব্যথা হলেও এই পানীয় স্বস্তি দেয়। এক বার ঠান্ডা লাগলে এখন তা ২-৩ দিন স্থায়ী হচ্ছে। যত দিন না পুরোপুরি ফিট হচ্ছেন, এই পানীয়ে চুমুক দিলে অল্প দিনেই সুস্থ হয়ে উঠবেন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE