Advertisement
১২ জুলাই ২০২৪
Woman Beaten with Stick

লাঠিপেটা করছে একদল লোক, চিৎকার করছেন মহিলা, সাহায্য না করে ভিডিয়ো করলেন পথচারীরা!

ঘটনাটি মধ্যপ্রদেশের ধার জেলার। সেখানকার তান্ডা এলাকায় ওই মহিলাকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে পঞ্চায়েত প্রধান-সহ বেশ কয়েক জনের বিরুদ্ধে। পুলিশ সূত্রে খবর, ঘটনাটি ২০ জুনের।

মহিলাকে লাঠিপেটা করার সেই দৃশ্য।

মহিলাকে লাঠিপেটা করার সেই দৃশ্য। ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ২২ জুন ২০২৪ ১১:৩০
Share: Save:

রাস্তায় ঘিরে ধরে এক মহিলাকে লাঠিপেটা করা হচ্ছে। সাহায্যের জন্য চিৎকার করছেন তিনি। কিন্তু পথচারীরা কেউ তো এগিয়ে এলেনই না, বরং দূর থেকে দাঁড়িয়ে সেই ঘটনার ভিডিয়ো করলেন। সেই ঘটনার একটি ভিডিয়ো প্রকাশ্যে এসেছে। যদিও ভিডিয়োটির সত্যতা যাচাই করেনি আনন্দবাজার অনলাইন।

ঘটনাটি মধ্যপ্রদেশের ধার জেলার। সেখানকার তান্ডা এলাকায় ওই মহিলাকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে পঞ্চায়েত প্রধান-সহ বেশ কয়েক জনের বিরুদ্ধে। পুলিশ সূত্রে খবর, ঘটনাটি ২০ জুনের। স্থানীয় সূত্রে দাবি করা হয়েছে, মহিলা এক ব্যক্তির সঙ্গে বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছিলেন। কিন্তু তাঁকে খুঁজে বার করে রাস্তাতেই লাঠিপেটা করা হয় বলে অভিযোগ।

ভিডিয়োয় দেখা যাচ্ছে, হলুদ শাড়ি পরা এক মহিলাকে ধরে রেখেছেন পাঁচ জন। তার পর সাদা জামা পরা এক ব্যক্তিকে দেখা গেল। পাশে দাঁড়ানো এক যুবকের কাছ থেকে তিনি লাঠি চাইলেন। তার পর একের পর এক বাড়ি মেরে যাচ্ছিলেন। মহিলা যত চিৎকার করছেন, ততই তাঁর উপর লাঠির ঘা বাড়ছিল। মারের চোটে মহিলা বেঁকে যাচ্ছিলেন, কিন্তু তার পরেও তাঁকে রেয়াত করা হচ্ছিল না।

রাস্তার মধ্যে এই ঘটনা যখন ঘটছিল, পথচারীরা কেউ কেউ দাঁড়িয়ে পড়েছিলেন। মারের দৃশ্য দেখছিলেন, কিন্তু মহিলা সাহায্য চাইলেও কেউ এগিয়ে যাননি। তাঁদের মধ্যে কেউ কেউ আবার সেই ঘটনার ভিডিয়োও করেছেন। সেই ভিডিয়ো পুলিশের হাতে পৌঁছতেই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে তৎপর হয় তারা। ধারের পুলিশ সুপার মনোজ কুমার সিংহ জানিয়েছেন, মহিলা একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। মূল অভিযুক্তকে চিহ্নিত করা গিয়েছে। তিনি নুর সিংহ ভুরিয়া। বাকিদের খোঁজে তল্লাশি চালানো হচ্ছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Woman beaten Madhya Pradesh
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE