সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ প্রত্যাহার ও জম্মু-কাশ্মীরকে দু’টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করার সিদ্ধান্ত নিয়ে তপ্ত ভারত ও পাকিস্তানের কূটনীতি। তার আঁচ পড়তে পারে কেমব্রিজের ডিউক যুবরাজ উইলিয়ম ও ডাচেস কেট মিডলটনের পাকিস্তান সফরেও। এমন ‘উত্তেজনাপূর্ণ’ পরিস্থিতির মধ্যে ইসলামাবাদ সফর বাতিল করতে পারেন উইলিয়ম ও কেট। এই দাবি করেছে পাক সংবাদ মাধ্যম ‘দ্য নিউজ ইন্টারন্যাশনাল’।

ব্রিটেনের বিদেশমন্ত্রককে উদ্ধৃত করে এক সংবাদ মাধ্যমে লেখা হয়েছে, ওই এলাকায় সাম্প্রতিক পরিস্থিতি বিচার করে এই মুহূর্তে পাকিস্তান সফর নাও করতে পারেন ব্রিটেনের ওই রাজ-দম্পতি। গত জুন মাসে ব্রিটেনের তরফে একটি সরকারি বিবৃতি দিয়ে জানানো হয়েছিল, বিদেশ মন্ত্রকের অনুরোধে পাকিস্তান সফর করবেন উইলিয়ম ও কেট মিডলটন। গত ২০০৬ সালে যুবরাজ চার্লস ও ক্যামিলার পর এই প্রথম ব্রিটেনের কোনও রাজ-দম্পতি পাকিস্তান সফরে যেতে পারেন।

এর আগে, ১৯৬১ ও ১৯৯৭ সালে পাকিস্তান সফর করেন রানি এলিজাবেথ টু। ১৯৯১ সালে ইসলামাবাদের অতিথি হন যুবরানি ডায়নাও।

আরও পড়ুন: ছন্দে ফেরানোর চেষ্টা, উপত্যকায় খুলল সরকারি অফিস, স্কুল খুললেও হাজিরা নগণ্য​

আরও পড়ুন: আফগান তাস খেলতে গিয়ে মুখ পুড়ল পাকিস্তানের, জম্মু-কাশ্মীর নিয়ে তোপ দাগল গনি সরকার​