Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৯ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

Health Tips: রোজ সন্ধ্যায় এক কাপ হোয়াইট টি খান, এক মাসেই সুফল টের পেতে পারেন

সন্ধ্যার পরে এই চা খাওয়ার রীতি। চিনে রাতের খাবারের সঙ্গে বা তার পরে অনেকে এই হোয়াইট টি পান করেন?

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৪ নভেম্বর ২০২১ ২০:৩৯
হোয়াইট টি খেলে কী হয়?

হোয়াইট টি খেলে কী হয়?
ছবি: সংগৃহীত

কালো চা তো অনেকেই খান। কেউ কেউ স্বাস্থ্য ভাল রাখার জন্য গ্রিন টি’ও খান। কিন্তু হোয়াইট টি? সেটি খেলে কী হয়?

কী এই হোয়াইট টি? চিনের ফুজিয়ান প্রদেশে প্রথম এই চা চাষ শুরু হয়। এখন ভারত এবং নেপালের বহু জায়গায় এই চা পাতার চাষ হয়। হোয়াইট টি’র রং হাল্কা হলুদ। কালো চা বা গ্রিন টি’র বেশির ভাগ গুণই এতে রয়েছে। কিন্তু এই চায়ের স্বাদ একটু আলাদা। অন্য চায়ের তুলনায় এর কষা ভাব একটু কম। সুগন্ধের মাত্রাও কমের দিকেই।

সন্ধ্যার পরে এই চা খাওয়ার রীতি। চিনে রাতের খাবারের সঙ্গে বা তার পরে অনেকে এই হোয়াইট টি পান করেন?

Advertisement



কী কী উপকার হয় হোয়াইট টি খেলে? রইল তালিকা।

• এই চা খেলে ত্বকের নমনীয়তা বাড়ে। বয়সের ছাপ কম পড়ে। তা ছাড়া নানা জীবাণু ঘটিত সংক্রমণ থেকেও ত্বককে রক্ষা করে এই চা। নিয়মিত এই চা খেলে এক মাসেই ত্বকের উন্নতি চোখে পড়ে।

• ওজন কমাতেও সাহায্য করে এই চা। শরীর থেকে দূষিত পদার্থ বার করে দেয়। ফলে দ্রুত ওজন কমে। রোজ এক কাপ করে এই চা খেলে এক মাসেই ওজন কমতে পারে।

• ত্বকের পাশাপাশি চুলেরও উপকার করে এই চা। নিয়মিত এই চা খেলে, মাসখানেক যেতে না যেতেই কমে খুসকির সমস্যা। চুলের গোড়াও মজবুত হয়।

• যাঁরা ডায়াবিটিসের সমস্যা ভুগছেন, তাঁরা যদি নিয়ম করে রোজ এক কাপ হোয়াইট টি পান করেন, তাঁদের এই সমস্যা কিছুটা কমতে পারে। কারণ হোয়াইট টি রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে।

• এই হোয়াইট টি এমন কয়েকটি হরমোনের ক্ষরণ বাড়িয়ে দেয়, যেগুলি মনকে শান্ত রাখে। যাঁরা নিয়মিত এই চা পান করেন, তাঁদের রক্তচাপ কমে।

• তবে এই চায়ের সবচেয়ে বড় গুণ, এটি ক্যানসার প্রতিহত করতে সাহায্য করে। দেখা গিয়েছে, যাঁরা নিয়মিত এই চা পান করেন, তাঁদের ক্যানসারের আশঙ্কা কমে।

আরও পড়ুন

Advertisement