• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

এক বছর পিছিয়ে রয়েছি ক্রিকেট থেকে, ম্যাচ জিতিয়ে বললেন ওয়ার্নার

David Warner
বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ১৪৭ বলে ১৬৬ ওয়ার্নারের। ছবি: এ এফ পি

Advertisement

বল বিকৃতির অভিযোগ, এক বছর নির্বাসন... সব কিছু কাটিয়ে বিশ্ব ক্রিকেটে ফের শুরু হয়েছে ওয়ার্নার শো। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ১৪৭ বলে ১৬৬ রানের একটি ঝকঝকে ইনিংস উপহার দিয়েছেন ওয়ার্নার। চলতি বিশ্বকাপে এটি তাঁর দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। ম্যাচ জিতিয়ে অস্ট্রেলিয়ার বিধ্বংসী ওপেনার বললেন, “এক বছর পিছিয়ে রয়েছি ক্রিকেট থেকে। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সেই ব্যাবধান মুছতে হবে।” তিনি চান দলের জন্য এতদিন রান না করতে পারার আক্ষেপকে দ্রুত মুছে ফেলতে।


অস্ট্রেলিয়াকে জেতার অভ্যাসটা ধরে রাখতে হবে বলে মনে করেন ওয়ার্নার। এ বারের বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার ৬টি খেলা হয়েছে। যার মধ্যে শুধু মাত্র ভারতের কাছেই পরাস্ত হয়েছেন তাঁরা। বাংলাদেশকে হারিয়ে এই মুহূর্তে তাঁরা পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে। বছরের শুরুতে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে খেলেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন করেন ওয়ার্নার। সেই কথা মনে করিয়ে দিয়ে তিনি বলেন, “ফিরে এসে ভাল লাগছে। যদিও বিশ্বকাপ সম্পূর্ণ অন্য রকম অভিজ্ঞতা, তাঁর সঙ্গে অন্য কিছুর তুলনা চলে না। তবে এক বছর বাদে ফিরে এসে মনে হচ্ছে আবার স্বাভাবিক জীবনে ফিরে এসেছি।”

আরও পড়ুন: দুরন্ত লড়াই, পার্থক্য গড়ে দিল ফিল্ডিং, পরবর্তী লড়াইয়ের জন্য বুক বাঁধছে বাংলাদেশ

আরও পড়ুন: ইংল্যান্ডের মতো নিষ্প্রাণ উইকেট দেখেননি বুমরা​


অস্ট্রেলীয় অধিনায়ক ফিঞ্চের সঙ্গে ওয়ার্নারের ১২১ রানের জুটি বাংলাদেশের বিরুদ্ধে বড় রানের ভিত গড়ে দেয়। ফিঞ্চ ৫৩ রানে ফিরে গেলেও নিজের ১৬তম শতরান করেন ওয়ার্নার। এই রান তাঁকে পৌঁছে দেয় চলতি বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের তালিকার শীর্ষে। বিশ্বকাপের ইতিহাসে তিনি প্রথম ব্যাটসম্যান যার একাধিক ১৫০ বা তার বেশি রানের ইনিংস রয়েছে।


এই মুহূর্তে বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী বলেন, “বিশ্বকাপে নিজেদের সেরা খেলাটা খেলতে চাই। দলের সবাই নিজের সেরাটা দেওয়ার জন্যে মুখিয়ে রয়েছে। এগিয়ে যাওয়ার জন্যে নিজেদের সেরাটা বার করে আনতেই হবে।” এর জন্যে তাঁরা প্রতি মুহূর্তে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন বলেও জানান ওয়ার্নার।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন