Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৭ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

পাক শুটারদের ভিসা না দেওয়ার জের, অলিম্পিক কমিটির কড়া নিষেধাজ্ঞার মুখে ভারত

প্রতিযোগীদের জন্য কোনও রাজনৈতিক বাধা থাকবে না, এই লিখিত প্রতিশ্রুতি দেবার পরই ভারতকে প্রতিযোগিতা আয়োজন করতে দেওয়ার কথা ভাবা হবে বলে জানিয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদন
নয়াদিল্লি ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ১০:৩২
Save
Something isn't right! Please refresh.
প্রতীকী চিত্র।

প্রতীকী চিত্র।

Popup Close

গত ১৪ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীরের পুলওয়ামায় ৪০ জন ভারতীয় জওয়ানকে হত্যা করেছিল পাক মদতপুষ্ট জইশ জঙ্গিরা। তার পর থেকেই আন্তর্জাতিক দুনিয়ায় পাকিস্তানকে বয়কটের রাস্তায় হেঁটেছে ভারত। কূটনীতির বেড়া ডিঙিয়ে সেই বয়কট ক্রীড়া, সংস্কৃতি সহ আরও বিভিন্ন ক্ষেত্রেও ছড়িয়ে পড়েছিল। এর পরই নয়াদিল্লির শুটিং বিশ্বকাপে দুই পাকিস্তানি শুটারকে ভিসা না দেওয়ার ঘটনা ঘটে। সেই ঘটনার জেরেই আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির তোপের মুখে পড়ল ভারত। ভারতের সঙ্গে আগামী দিনে সব ধরনের আলোচনা বন্ধ করার কথা জানাল তারা।

আগামী দিনে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি অনুমোদিত কোনও প্রতিযোগিতা আয়োজন করতে পারবে না ভারত। পাশাপাশি বিভিন্ন আন্তর্জাতিক ক্রীড়া সংস্থাকেও ভারতে প্রতিযোগিতা না করার অনুরোধ জানিয়েছে তারা। অলিম্পিক কমিটির বক্তব্য, প্রতিযোগীদের ভিসা না দেওয়ার ঘটনা ‘অলিম্পিক চার্টার’-এর বিরোধী। রাজনৈতিক ভাবে প্রভাবিত হয়ে কোনও আয়োজক দেশ কাউকে প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়া থেকে আটকাতে পারে না।

অলিম্পিক কমিটি তাঁদের বিবৃতিতে জানিয়েছে, ‘আমরা পুরো বিষয়টি জানার পর শেষ চেষ্টা করেছিলাম। ভারত সরকারের সঙ্গেও কথা বলেছিলাম। কিন্তু পাকিস্তানি প্রতিযোগীদের ভারতে হতে চলা প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়াতে পারিনি। তাই বাধ্য হয়েই অলিম্পিক এগজিকিউটিভ বোর্ড ভারত সরকার এবং ভারতের জাতীয় অলিম্পিক সংস্থার সঙ্গে সব রকমের আলোচনা বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আগামী দিনে ভারত অলিম্পিক কমিটি অনুমোদিত যে সমস্ত প্রতিযোগিতার আবেদন করেছিল বা করবে বলে ভেবেছে, বাতিল করা হল সেই সমস্ত কিছুই।’

Advertisement

ভারতের অস্ত্রভাণ্ডার সম্পর্কে কতটা জানেন, পরখ করে নিন জ্ঞানভাণ্ডার

আরও পড়ুন: ‘দু’পা বাড়িয়ে দেখো, ভারত কত বন্ধুত্বপূর্ণ পা বাড়িয়ে দেয়!’

প্রতিযোগীদের জন্য কোনও রাজনৈতিক বাধা থাকবে না, এই লিখিত প্রতিশ্রুতি দেবার পরই ভারতকে প্রতিযোগিতা আয়োজন করতে দেওয়ার কথা ভাবা হবে বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক সংস্থা।

আরও পড়ুন: পুলওয়ামা হামলার খবর পেয়েও মোদী ব্যস্ত ছিলেন তথ্যচিত্রে! অভিযোগ কংগ্রেসের

আগামী দিনে অলিম্পিক সংস্থা অনুমোদিত বেশ কয়েকটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ প্রতিযোগিতা করার লক্ষ্যে দীর্ঘ দিন ধরে পরিকল্পনা করছিল ভারত। ২০২৬ সালে যুব অলিম্পিকস, ২০৩০ সালে এশিয়ান গেমস এবং ২০৩২ সালে অলিম্পিকস করার কথা ভেবেছিল নয়াদিল্লি। অলিম্পিক সংস্থার এই সিদ্ধান্তে নিশ্চিত ভাবেই সেই প্রস্তুতিতে প্রভাব পড়বে।

আরও পড়ুন: ভারত ম্যাচ বয়কট করতেই পারে, বলছেন শোয়েব



Something isn't right! Please refresh.

Advertisement