Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৭ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

যুবককে মার, নেড়া করার চেষ্টার নালিশে গ্রেফতার ৬

নিজস্ব সংবাদদাতা
ভাতার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ০৪:৩৮
বর্ধমান-কাটোয়া রাজ্য সড়কে অবরোধ। শনিবার রাতে। নিজস্ব চিত্র

বর্ধমান-কাটোয়া রাজ্য সড়কে অবরোধ। শনিবার রাতে। নিজস্ব চিত্র

এক যুবককে মোটরবাইকে করে তুলে নিয়ে গিয়ে মারধর করে নেড়া করার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে ভাতারে। শনিবার বিকেলে খবর পেয়ে ভাতারের পটনা গ্রামে গিয়ে ওই যুবককে উদ্ধার করে পুলিশ। গ্রামবাসীর একাংশের ক্ষোভের মুখেও পড়তে হয় বলে জানায় পুলিশ। ঘটনায় জড়িত অভিযোগে ছ’জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ওই যুবককে তৃণমূলের একটি কার্যালয়ে নিয়ে গিয়ে মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। যদিও তৃণমূল নেতৃত্ব তা মানতে চাননি।

কাটোয়ার রাজুয়া গ্রামের ওই যুবকের দাবি, পটনা গ্রামের এক মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী ছাত্রীর সঙ্গে তাঁর বন্ধুত্ব রয়েছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, কয়েক মাস আগে ছাত্রীটি ‘নিখোঁজ’ হয়ে গিয়েছিল। পরিজনেরা কাটোয়া থেকে তাকে বাড়ি ফিরিয়ে নিয়ে আসে। অভিযোগ, শনিবার পরীক্ষা শেষে পটনা গ্রাম থেকে কিলোমিটার পাঁচেক দূরে এরুয়ার গ্রামে এক নির্জন জায়গায় ওই ছাত্রী ও যুবককে দেখতে পান স্থানীয় এক যুবক। তিনি ছাত্রীর পরিজনদের খবর দেন।

ওই যুবক অভিযোগ করেন, পটনা গ্রাম থেকে তিন জন মোটরবাইকে এসে তাঁকে বলগোনা বাজারে তৃণমূলের একটি কার্যালয়ে নিয়ে যায়। সেখানে তাঁকে মারধর করা হয়। তার পরে ফের মোটরবাইকে পটনা গ্রামে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে ফের কয়েকজন তাঁকে মারধর করে। তার পরে মাথার একাংশের চুল কেটে নেয়। পুলিশ জানায়, এই ঘটনার খবর পেয়ে ওই যুবককে উদ্ধার করতে ঘটনাস্থলে যাওয়া হয়। কিন্তু সেখানে বিক্ষোভের মুখে পড়তে হয়। ঘটনাস্থল থেকেই কয়েকজনকে আটক করে পুলিশ। পরে অভিযোগের ভিত্তিতে ওই ছ’জনকে গ্রেফতার করা হয়।

Advertisement

‘নিরীহ’ লোকজনকে গ্রেফতার ও মহিলাদের উপরে ‘অত্যাচারের’ অভিযোগ তুলে শনিবার সন্ধ্যায় ঘণ্টা খানেক বর্ধমান-কাটোয়া রাজ্য সড়ক অবরোধ করেন পটনা গ্রামের বাসিন্দাদের একাংশ। পুলিশের উপরেও ক্ষোভ জানানো হয়। তৃণমূলের পতাকা হাতে অবরোধ চলে। দু’জন অভিযুক্তের পরিজন শেখ ওসমান দাবি করেন, ‘‘পুলিশ দোষীদের ধরতে পারেনি। নিরীহদের গ্রেফতার করেছে। ’’ যদিও পুলিশ তা মানতে চায়নি।

স্থানীয় বাসিন্দা তথা ভাতার ব্লক যুব তৃণমূলের কার্যকরী সভাপতি নুরুল হুদার বক্তব্য, ‘‘একটি ঘটনা ঘটেছে ঠিকই। তবে এর সঙ্গে কোনও ভাবে তৃণমূলের যোগ নেই। কিছু লোক তৃণমূলের পতাকা হাতে অবরোধ করছে শুনে আমরা গিয়ে তাঁদের বোঝাই, গ্রামীণ ঘটনায় দলকে টানা ঠিক হচ্ছে না। তার পরেই অবরোধ উঠে যায়। ’’ পুলিশ জানায়, রাজ্য সড়কে ‘বেআইনি জমায়েত’ করে অবরোধের জন্য নির্দিষ্ট ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Advertisement