Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

Drug Dealer: মাদক কারবারির গুলিতে নিহত পুলিশের সেই ‘সোর্স’, মালদহে গ্রেফতার এক, সঙ্গী পলাতক

পুলিশের দাবি, ধৃতের কাছ থেকে একটি আগ্নেয়াস্ত্র ছাড়াও প্রায় ৪০০ গ্রাম ব্রাউন সুগার উদ্ধার হয়েছে। তবে তাঁর সঙ্গী সাহাবুদ্দিন শেখ পলাতক।

নিজস্ব সংবাদদাতা
মালদহ ১৫ জানুয়ারি ২০২২ ১১:৫৯
গুলি লাগে রাজীবের তলপেটে

গুলি লাগে রাজীবের তলপেটে
ফাইল চিত্র

মাদক কারবারির গুলিতে আহত যুবকের মৃত্যু হল শনিবার। পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালানোর অভিযোগ উঠেছিল এক মাদক কারবারির বিরুদ্ধে। শুক্রবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটে মালদহের কালিয়াচকের বালিয়াডাঙ্গায়। মাদকের লেনদেনের বিরুদ্ধে অভিযানে গিয়েছিল পুলিশের একটি দল। তাদের দেখেই মাদক কারবারি গুলি চালাতে শুরু করেন। সেই গুলি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে স্থানীয় এক যুবকের তলপেটে লাগে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাঁকে মালদহ মেডিক্যালে ভর্তি করানো হয়। শনিবার সকালে তাঁর মৃত্যু হয়। নিহত ওই ব্যক্তির নাম রাজীব শেখ।

রাজীব পুলিশের ‘সোর্স’ হিসাবে কাজ করতেন বলে জানিয়েছেন মালদহের পুলিশ সুপার অমিতাভ মাইতি। পুলিশ সূত্রে খবর, কালিয়াচক ও বৈষ্ণবনগর এলাকায় মাদক কারবারীদের চিনতেন রাজীব। শুক্রবার পুলিশের অভিযানে মাদক কারবারীদের চিনিয়ে দিতে এলাকায় গিয়েছিলেন তিনি।

রাজীবের বাড়ি বৈষ্ণবনগর থানার কুম্ভীরাতে। যে মাদক কারবারির বিরুদ্ধে গুলি চালানোর অভিযোগ, পিছু ধাওয়া করে তাঁকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ধৃতের নাম আসমাউল শেখ। ২৩ বছরের আসামাউলের বাড়ি কালিয়াচকের কলেজ মোড়ে।

Advertisement

পুলিশের দাবি, ধৃতের কাছ থেকে একটি আগ্নেয়াস্ত্র ছাড়াও প্রায় ৪০০ গ্রাম ব্রাউন সুগার উদ্ধার হয়েছে। তবে অভিযুক্ত মাদক কারবারির এক সঙ্গী সাহাবুদ্দিন শেখ পালিয়েছেন। তাঁর খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে কালিয়াচক থানার পুলিশ। সাহাবুদ্দিনের বাড়ি চাঁদিপুরের হাজিনগর এলাকায়।

মালদহের পুলিশ সুপার জানিয়েছেন, কালিয়াচক থানার এসআই সৌম্যজিৎ মল্লিকের কাছে খবর আসে, এলাকায় দু’জন মাদকপাচারকারী মাদক নিয়ে আসতে পারেন। সঙ্গে সঙ্গে সহকর্মী কৌশিক দাসের সঙ্গে দু’টি দলে ভাগ হয়ে সৌম্যজিৎরা ওই এলাকায় অভিযানে যান। মাদক পাচারকারীদের চিনতেন রাজীব। পাচারকারীরে এলে পুলিশ তাঁদের ধরতে যায়। তখনই গুলি চালান আসামাউল। গুলি লাগে রাজীবের তলপেটে।

আরও পড়ুন

Advertisement