• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দৈনিক চার হাজার টাকা ফ্ল্যাট ভাড়া দিতেন রোমানীয় প্রতারক, থাকতেন রাজার হালে!

ATM
অলঙ্করণ: শৌভিক দেবনাখ

Advertisement

প্রতারণার টাকায় রীতি মতো রাজার হালে থাকতেন রোমানীয় এটিএম প্রতারকরা। মঙ্গলবার সকালেই দিল্লি থেকে বিমানে কলকাতায় নিয়ে আসা হয় ধৃত রোমানীয় প্রতারক সিলভিউ ফ্লোরিন স্পিরিডনকে।  আদালতে তোলা হলে আগামী ২০ ডিসেম্বর পর্যন্ত তাঁকে পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক।

সিলভিউকে জেরা করেই ব্যাঙ্ক জালিয়াতি দমন শাখার গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন, দিল্লির গ্রেটার কৈলাসের যে ফ্ল্যাটে তিনি এবং তাঁর সঙ্গী থাকতেন তার দৈনিক ভাড়া ছিল ৪ হাজার টাকা! বাড়িওয়ালার কাছে নিজের পরিচয় দিয়েছিলেন, একটি বিদেশি বিমান সংস্থার কর্মী হিসাবে। এক তদন্তকারী বলেন, ‘‘অত্যন্ত বিলাসবহুল জীবনযাপন করার প্রমাণ পাওয়া গিয়েছে ওই ফ্ল্যাটে। অসংখ্য দামি টুপি, নামী ব্র্যান্ডের জামাকাপড় থেকে শুরু করে সদ্য বাজারে আসা একাধিক দামি মোবাইল পাওয়া গিয়েছে।”

ওই তদম্তকারী জানিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত সিলভিউ ছাড়াও এটিএম জালিয়াতি চক্র এই রোমানীয় গ্যাংয়ের ৪ জনের হদিশ পাওয়া গিয়েছে। তাদের মধ্যে ফেরার তিন জন এবং এক জন রয়েছেন দিল্লি পুলিশের হেফাজতে। জেরা করে জানা গিয়েছে, বেআইনি ভাবে ভারতে বসবাস করার জন্য গত নভেম্বরের ২০ তারিখ দিল্লি পুলিশ সিলভিউয়ের দলেরই এক সদস্য তৌসিফ মৌরাউকে গ্রেফতার করে। তবে দিল্লি পুলিশ এখনও হদিশ পায়নি তৌসিফ নামে এটিএম জালিয়াতির সঙ্গে যুক্ত এক ব্যক্তির।

কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগের এক কর্তা বলেন, ‘‘কলকাতায় ৩০ নভেম্বর থেকে ৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত বিভিন্ন গ্রাহকের অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা তুলেছিল ওই প্রতারকরা। আর ৩ ডিসেম্বর থেকে টাকা তোলা শুরু করে দিল্লির বিভিন্ন গ্রাহকের। দিল্লিতে ৩ ডিসেম্বর থেকে ৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত ২০০টি এ রকম ঘটনা ঘটেছে জালিয়াতির।” গোয়েন্দাদের সন্দেহ, এই গ্যাং দিল্লির প্রতারণার সঙ্গেও যুক্ত থাকতে পারে।

আরও পডু়ন: রাজ্যসভা-বিধানসভায় ধনখড়ের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে তৃণমূল, স্পিকারকে কড়া চিঠি রাজ্যপালের

এক গোয়েন্দা কর্তা বলেন, ‘‘সিলভিউ এ দফায় ১৪ অক্টোবরে ভারতে আসে। টুরিস্ট ভিসা নিয়ে। এর আগেও এ বছরের ২০ মার্চ এক বার এবং তার পরে ১৯ জুলাই সে ভারতে আসে। এই মুহূর্তে দিল্লিতে রয়েছে ২৫০ জন রোমানীয়।’’ জেরায় গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন, সিলভিউয়ের মতো অসংখ্য যুবক সারা পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এ রকম প্রতারণার ‘টার্গেট’ নিয়ে ঘুরে বেড়াচ্ছে। এমনকি, গত বছর অগস্টে লন্ডন বিমান বন্দরে বিভিন্ন বিমান সংস্থার সার্ভার হ্যাক করে কোটি কোটি পাউন্ড হাতিয়ে নেওয়ার পিছনেও ছিল রোমানীয় গ্যাং। ফলে এ দেশেই একাধিক রোমানীয় গ্যাং সক্রিয়। তবে গত বছর কলকাতায় পাকড়াও হওয়া গ্যাংয়ের সঙ্গে এদের কোনও যোগ আছে কি না তা স্পষ্ট নয়।

সিলভিউ নিজে ভারত ছাড়া অন্য কোনও দেশে গিয়েছেন কি না তা পুরো স্পষ্ট নয়। কারণ সোমবার যখন পুলিশ তাঁকে অটোতে তাড়া করছিল তখন সে তার পাসপোর্ট ফেলে দেয়। এক তদন্তকারী বলেন, ‘‘এটা নাইজেরীয়দেরও মোডাস অপারেন্ডি। পাসপোর্ট না থাকলে তাকে বেআইনি ভাবে এ দেশে থাকার জন্য গ্রেফতার করতে হবে। তা হলে কয়েক মাসের মধ্যেই দূতাবাসের সাহায্যে দেশে ফিরে যাওয়ার সুযোগ থাকে। সেই সুযোগ কাজে লাগাতেই সে পাসপোর্ট ফেলে দেয়।”

আরও পডু়ন: নির্ভয়া দোষীদের ফাঁসি শীঘ্রই! তিহাড় জেলে এল ফাঁসির দড়ি, ‘ডামি’ দিয়ে মহড়াও সারা

তদন্তকারীরা সিলভিউয়ের কাছ থেকে উদ্ধার হওয়া ল্যাপটপ ঘেঁটে অসংখ্য কার্ডের তথ্য পেয়েছেন। এক গোয়েন্দা কর্তা বলেন, ‘‘সিলভিউয়ের কাছ থেকে পাওয়া গিয়েছে স্কিমার যন্ত্র তৈরির সরঞ্জামও। আমাদের সন্দেহ, সিলভিউ নিজেই বানাতো স্কিমার।” আর সেখান থেকেই গোয়েন্দাদের ধারণা, সিলভিউ কলকাতায় এসেছিল।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন