• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

এ বার চিত্তরঞ্জন মেডিক্যালে ইটের ঘায়ে জখম জুনিয়র ডাক্তার, জরুরি বিভাগ বন্ধের হুঁশিয়ারি

CNMC
চিত্তরঞ্জন ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজে ইট ছুড়ছে উত্তেজিত জনতা। —নিজস্ব চিত্র।

Advertisement

ডাক্তার নিগ্রহ নিয়ে রাজ্য জুড়ে তুলকালাম উত্তেজনার মধ্যেই ফের আক্রান্ত হলেন এক জুনিয়র ডাক্তার। এ বারের ঘটনাস্থল চিত্তরঞ্জন ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ। জুনিয়র ডাক্তারদের অভিযোগ, শুক্রবার বিকালে রোগীর আত্মীয় সেজে স্থানীয় বাসিন্দারা হাসপাতালে ঢোকার চেষ্টা করছিলেন। তাঁদের ছোড়া ইটেই আহত হন অভিষেক সাহা নামে ওই ডাক্তার। আপাতত তাঁর চিকিৎসা চলছে।এর পরেই ন্যাশনালের জুনিয়র ডাক্তাররা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, আউটডোরের পাশাপাশি জরুরি বিভাগও বন্ধ রাখা হবে। ফলে শনিবার থেকে নতুন করে ভোগান্তি বাড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে এই মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে।

ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে হাসপাতাল চত্ত্বরে উত্তেজনা ছড়িয়েছে। মোতায়েন হয়েছে বিশাল পুলিশ বাহিনী।এনআরএস–এর ঘটনার পর থেকেই কলকাতা সমেত গোটা রাজ্যের বিভিন্ন হাসপাতাল ও মেডিক্যাল কলেজে কর্মবিরতি চলছে। বন্ধ রয়েছে আউটডোর পরিষেবা। ব্যতিক্রম নয় ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজও। এ দিনও ন্যাশনাল হাসপাতালে রোগী প্রত্যাখানের ঘটনা ঘটেছে। রোগী এবং তাঁদের আত্মীয়দের ফিরিয়ে দেওয়া হয়। সকাল থেকেই হাসপাতালে উত্তেজনা ছিল।

অভিযোগ, এ নিয়ে বাসিন্দাদের মধ্যে ক্ষোভ বাড়ছিল। জুনিয়র ডাক্তাররা গেটে দাঁড়িয়েছিলেন। তাঁরা রোগীর পরিবারকে ঢুকতে বাধা দেন। জোর করে ঢুকতে গেলেবচসা বাধে। ভিড়ের মধ্যে থেকে ইট ছোড়া হয়। আহত হনওই জুনিয়র চিকিৎসক। এই ঘটনার পরেই উত্তেজনা ছড়ায় ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজে।

আরও পড়ুন: ডাক্তার নিগ্রহের প্রতিবাদে মিছিল শহরে, জনজোয়ারে শামিল বিদ্বজ্জনরাও​

এবার শুধু খবর পড়া নয়, খবর দেখাও। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের YouTube Channel - এ।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন