দিল্লির জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ে (জেএনইউ) স্বামী বিবেকানন্দের মূর্তির অবমাননা নিয়ে এ বার প্রতিবাদে পথে নামলেন এ রাজ্যের বিজেপি নেতারা। শনিবার বিকালে শহর কলকাতায় মশাল মিছিল বার করেন তাঁরা। তবে দলের ব্যানারে এই প্রতিবাদ মিছিল বার করা হয়নি। বরং বিজেপির সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিদের নিয়ে তৈরি অরাজনৈতিক সংগঠন জাতীয়তাবাদী নাগরিক মঞ্চের ব্যানারেই মিছিলটি বেরোয়।

এ দিন বিকাল ৫টা নাগাদ রাসবিহারী মোড় থেকে গোলপার্ক পর্যন্ত মশাল হাতে মিছিল করেন বিজেপি নেতারা। তাতে শামিল হন রাজারহাট-নিউটাউনের বিধায়ক সব্যসাচী দত্ত, আরএসএস-এর বাংলা মুখপত্রের সম্পাদক তথা গত লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির প্রার্থী হওয়া রন্তিদেব সেনগুপ্ত, বিজেপির যুবনেতা শঙ্কুদেব পন্ডা, জাতীয় নাগরিক মঞ্চের আহ্বায়ক অরিন্দম চক্রবর্তী-সহ অন্য বিজেপি নেতারা।

ছিলেন টলিউডের বেশ কিছু পরিচিত মুখও, যাঁদের মধ্যে অন্যতম হলেন অঞ্জনা বসু, অনিন্দ্য বন্দ্যোপাধ্যায়, রূপা ভট্টাচার্য এবং অগ্নিমিত্রা পাল।

জেএনইউ-তে বিবেকানন্দের মূর্তির অবমাননার বিরুদ্ধে মশাল মিছিল। —নিজস্ব চিত্র।

আরও পড়ুন: বিকাশ ভবনের সামনে অনশনে ৪০, আন্দোলনের ঝাঁঝ বাড়াচ্ছেন পার্শ্ব শিক্ষকেরা​

আরও পড়ুন: আপেলের কেজি যখন ৬০ টাকা, পেঁয়াজ তখন ৮০, ঢেঁড়শ-টোম্যাটো-বেগুন বিকোচ্ছে ৭০-এ!​

গোলপার্কে পৌঁছে একটি সভাও করেন বিজেপি নেতারা। সেখানে বক্তৃতা করেন সব্যসাচী, রন্তিদেব, শঙ্কুদেব এবং অগ্নিমিত্রারা। অপরাধীদের কড়া শাস্তির দাবি করেন তাঁরা। ওই সভা থেকে বাংলাপক্ষকেও একহাত নেন বিজেপি নেতারা। তাঁরা প্রশ্ন তোলেন, বাঙালিয়ানা নিয়ে যাঁরা সবসময় বড়াই করেন, সেই বাংলাপক্ষ এখন কোথায় গেল? মূর্তির অবমাননা দেখেও তাঁদের কাউকে পথে নামতে দেখা যাচ্ছে না কেন?