• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

হিন্দু হোস্টেল নিয়ে স্থায়ী সমাধান চায় প্রেসিডেন্সির পড়ুয়ারা, এখনও ঘেরাও উপাচার্য

Presidency University
এখনও আন্দোলন চলছে। —নিজস্ব চিত্র।

উপাচার্য অনুরাধা লোহিয়ার ঘরের সামনে টানা অবস্থানে প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়ারা। হিন্দু হস্টেলের তিন, চার ও পাঁচ নম্বর ওয়ার্ডের সংস্কার-সহ বেশ কিছু দাবিতে পড়ুয়ারা আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন গত পনেরো দিন ধরে। এ বিষয়ে শিক্ষক এবং উপাচার্যের সঙ্গে কয়েক দফা আলোচনার পরও সমাধান সূত্রে মেলেনি বলে দাবি আন্দোলনকারীদের। সে কারণে বুধবারও উপাচার্যের ঘরে সামনে অবস্থানে রয়েছেন তাঁরা।

অভিযোগ, পড়ুয়াদের স্বার্থেই সংস্কার-সহ নানা দাবিতে এই আন্দোলন চলছে। বিষয়টি নিয়ে সমাধানের কোনও তৎপরতা নেই কর্তৃপক্ষের। উপাচার্যও এ বিষয়ে সদর্থক ভূমিকা নিচ্ছে না বলে পড়ুয়াদের দাবি।

এই আন্দোলনের জেরে পঠনপাঠনও শিকেয় উঠেছে বলে কারও কারও মত। গুরত্বপূর্ণ কিছু ক্লাস হচ্ছে না। তবে এই দাবি মানতে নারাজ আন্দোলনকারীরা। তাঁদের কথায়, ‘‘কেন সংস্কারের কাজ থমকে রয়েছে? কোথায় সমস্যা? তা নিয়ে আমরা কর্তৃপক্ষের লিখিত বক্তব্য  চাইছি। এ বিষয়ে উপাচার্য কি চান, তাও লিখিতআকারে জানাতে হবে।’’

আরও পড়ুন: দিল্লি নির্বাচনের মুখে রামমন্দির ট্রাস্ট গঠনের ঘোষণা মোদীর

আরও পড়ুন: মুসলিমদের ভয় নেই, সিএএ নিয়ে কেন্দ্রের পক্ষে সওয়াল রজনীকান্তের​

গত সোমবার রাতভর ঘেরাও ছিলেন উপাচার্য অনুরাধা লোহিয়া। মঙ্গলবার ভোরের দিকে তিনি বিশ্ববিদ্যালয় ছাড়লেও, পরে আবার ফিরে আসেন। আন্দোলনকারী এক ছাত্রের বক্তব্য, ‘‘উপাচার্য আমাদের সঙ্গে কথা বলে বিষয়টি নিয়ে সদার্থক আলোচনা করবেন। কিন্তু তা হয়নি।’’

এই ঘেরাও রাজনীতির বিষয়টি ভালভাবে নেননি শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। পড়ুয়াদের পাশাপাশি তিনি উপাচার্যের সঙ্গে কথা বলে যাতে সমাধান সূত্র বেরোয়, তার চেষ্টা করবেন বলে জানা যাচ্ছে প্রেসিডেন্সি সূত্রে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন