• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

না, ব্রেকফাস্ট সবচেয়ে জরুরি মিল নয়!

breakfast
প্রতীকী ছবি।
ওজন বশে রাখতে দিনের প্রথম খাবার অর্থাত্ ব্রেকফাস্ট অত্যন্ত জরুরি। সারা বিশ্বে চিকিত্সক, ডায়েটিশিয়ান, নিউট্রিশনিস্টরা ক্রমশই জোর দিচ্ছেন ব্রেকফাস্টের গুরুত্বের উপর। এমনকী, ব্রেকফাস্ট না করলে ঠিক কী কী শারীরিক সমস্যা হতে পারে সেই বিষয়েও ক্রমাগত সাবধান করে চলেছেন বিশেষজ্ঞরা।
 
এর মধ্যেই বাথ ইউনিভার্সিটির গবেষক ডা জেমস বেট জানাচ্ছেন অন্য কথা। তাঁর মতে, অত্যন্ত জরুরি হলেও ব্রেকফাস্টই দিনের সবচেয়ে প্রয়োজনীয় মিল নয়।
 
নিউট্রিশন ও মেটাবলিজম বিশেষজ্ঞ বেট এই বিষয়ে আমেরিকান জার্নাল অব ক্লিনিক্যাল নিউট্রিশনে একটি গবেষণা পত্র প্রকাশ করেন। ৭০ জন অংশগ্রহণকারীকে নিয়ে ছোট সেই গবেষণার পর বেট জানান, ব্রেকফাস্ট আমাদের এক্সারসাইজ করতে উদ্বুদ্ধ করে, রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে এবং সারা দিন সক্রিয় থাকতে সাহায্য করে ঠিকই। সকালে পুষ্টিকর খাবার খেলে সারা দিন বেশি খাওয়ার প্রবণতাও কমে। কিন্তু ব্রেকফাস্ট করলেই যে ওজন কমানো যায় বা ব্রেকফাস্ট না করলেই শরীরে মেদ জমবে এমন কোনও সরাসরি প্রমাণ পাওয়া যায়নি। 
 
নিউ সায়েন্টিস্ট ম্যাগাজিনে দেওয়া সাক্ষাত্কারে বেট জানান, আগের প্রজন্মের জীবনযাপনের ধরনের সঙ্গে ব্রেকফাস্ট ছিল সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু বর্তমান প্রজন্মে জীবনযাপনের ধরন বদলে গিয়েছে।
 

আরও পড়ুন: শীতের দিন শুরু হোক পুষ্টিকর ভারতীয় ব্রেকফাস্ট দিয়ে

‘এই ধরনের খবর আপনার ইনবক্সে সরাসরি পেতে এখানে ক্লিক করুন

 
লেট নাইট, বেশি সময় কাজ, দীর্ঘ সময় চেয়ারে বসে কাজের সঙ্গে খাপ খাওয়াতে গিয়ে ওজন ধরে রাখার যে চ্যালেঞ্জ তা শুধু ব্রেকফাস্ট করা বা না করার উপর নির্ভরশীল নয়। সারা দিনের খাওয়া এবং নিয়মিত এক্সারসাইজই একমাত্র সুস্থ থাকতে সাহায্য করতে পারে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন