• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

লি-র দাপট, পাকিস্তানকে ৪-০ উড়িয়ে দিল ভারত

India
গর্বিত: পাকিস্তানকে হারিয়ে বাছাই পর্বে উঠে লিয়েন্ডাররা। ছবি: পিটিআই।

Advertisement

পাকিস্তানকে ৪-০ হারানোর পাশাপাশি ডেভিস কাপে সব চেয়ে বেশি ডাবলস ম্যাচ জয়ের রেকর্ড আরও এক ধাপ বাড়িয়ে নিলেন ভারতীয় টেনিস তারকা লিয়েন্ডার পেজ। একই সঙ্গে ২০২০ সালে ডেভিস কাপের বাছাই পর্বে খেলার যোগ্যতা অর্জন করল ভারত। 

ডেভিস কাপে এটি লিয়েন্ডারের ৪৪তম ডাবলস ম্যাচে জয়। শনিবার কাজ়াখস্তানের রাজধানী নুর সুলতানে অভিষেক ঘটানো জীবন নেদুনচেঝিয়ানের সঙ্গে জুটি বেঁধে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ডাবলসে জেতেন লিয়েন্ডার। ভারতীয় জুটি ৫৩ মিনিটে উড়িয়ে দেয় পাকিস্তানের মহম্মদ শোয়েব ও হুফাইজ়া আবদুল রেহমানকে। লিয়েন্ডারদের পক্ষে ম্যাচের ফল ৬-১, ৬-৩। রিভার্স সিঙ্গলস ম্যাচে ইউসাফ খলিলের বিরুদ্ধে ৬-১, ৬-০ জিতে ৪-০ করেন সুমিত নাগাল। ফলে পঞ্চম রাবার খেলতে হয়নি। ২০১৪ সালে চিনা তাইপের বিরুদ্ধে ইনদওরে ৫-০ জিতেছিল ভারত। তার পরে ফের কোনও টাইয়ে সব ম্যাচ জিতল ভারতীয় দল।  

গত বছর ডেভিস কাপে তাঁর ৪৩তম ডাবলস ম্যাচ জিতে নতুন রেকর্ড গড়েছিলেন লিয়েন্ডার। চিনের বিরুদ্ধে যে ম্যাচ জিতে লিয়েন্ডার ভেঙেছিলেন ইটালির নিকোলা পিয়েত্রানজেলির রেকর্ড। 

আরও পড়ুন: ওয়ার্নারকে রেকর্ডের সুযোগ না দিয়ে কেন ডিক্লেয়ার? সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল ট্রোলড পেন

এ দিন সেই রেকর্ড আরও এগিয়ে নিয়ে গিয়ে লিয়েন্ডার টুইট করেন, ‘‘দেশকে জেতাতে পারলে যে অনুভূতি হয়, সেটাই হচ্ছে। শুনলাম এটি আমার ৪৪ নম্বর ডাবলস ম্যাচে জয় ডেভিস কাপে। যা রেকর্ড বুকে উঠেছে। কিন্তু প্রত্যেকে মনে করছে এটাই আমার প্রথম জয়। জীবন ও দলের বাকিদের জন্য আমি গর্বিত।’’

পরে সংবাদসংস্থাকে ডেভিস কাপে প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘‘সব জয়ই বিশেষ  জয়। রেকর্ড বইতে ভারতের নাম তোলার ব্যাপারটাও একটা বিশেষ অনুভূতি। আমাদের দলে বিভিন্ন প্রজন্ম ও বয়সের সদস্য রয়েছে। ভারতের হয়ে ফের খেলতে নেমে আগের মতো মজা হচ্ছে।’’ সঙ্গে সতীর্থ  জীবনের প্রশংসা করে ১৮টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম খেতাবের মালিক লিয়েন্ডার যোগ করেন, ‘‘জীবন ডেভিস কাপে প্রথম ম্যাচ খেলল। দলের বর্ষীয়ান সদস্য হিসেবে নিজের কাঁধেই সব চাপ তুলে নিয়েছিলাম। এ দিন সব কিছুই ঠিকঠাক হয়েছে। জীবন এক জন হৃদয়বান ব্যক্তিত্ব। আমি ওর সঙ্গে কোর্টে একসঙ্গে খেলতে পেরে গর্বিত। দলের এই তরুণ সদস্যেরাই আমাকে তরুণ ও তরতাজা করে রেখেছে। যা আমাকে নিজের সেরাটা দিতে 

প্রেরণা জোগায়।’’ 

বাছাই পর্বে আগামী বছরের ৬ ও ৭ মার্চ দেশের বাইরে অনুষ্ঠিত টাইয়ে ভারতের প্রতিপক্ষ ক্রোয়েশিয়া। ২৪টি দেশ খেলবে ওই বাছাই পর্বে। সেখান থেকে জয়ী ১২টি দল যোগ দেবে ইতিমধ্যেই ফাইনালসের যোগ্যতামান পার হওয়া ছয়টি দেশের সঙ্গে। যার মধ্যে রয়েছে চার সেমিফাইনালিস্ট কানাডা, গ্রেট ব্রিটেন, রাশিয়া ও স্পেন-সহ ২০২০ সালের ওয়াইল্ড কার্ড প্রাপ্ত দেশ ফ্রান্স এবং সার্বিয়া। বাছাই পর্বে হেরে যাওয়া ১২টি দেশ খেলবে ওয়ার্ল্ড গ্রুপ ওয়ান টাইয়ে। যা শুরু হবে আগামী বছর সেপ্টেম্বরে।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন