কিছু দিন আগে প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় বলেছিলেন, রোহিত শর্মাকে একদিন এবং টি টোয়েন্টি-র মতো টেস্টেও ওপেনিংয়ে খেলিয়ে দেখা উচিত। সেই কথাই এ বার বললেন, ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাচক এমএসকে প্রসাদ।

এই মুহূর্তে টেস্টে ভারতের হয়ে নিয়মিত ওপেন করতে দেখা যায় লোকেশ রাহুল এবং মায়াঙ্ক আগরওয়াল। কিন্তু বেশ কিছু দিন ধরেই রাহুলের ব্যাটে খরা চলছে। শেষ বার তিনি ৫০ পেরিয়েছিলেন ইংল্যান্ডে, সেটা গত বছর। পরের ১২ ইনিংসে তাঁর সংগ্রহ মাত্র ১৯৫ রান। এটাই চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়াচ্ছে বিরাটদের জন্য।

ওয়েস্ট ইন্ডিজে চার ইনিংসে রাহুলের রান যথাক্রমে ৪৪, ৩৮, ১৩ এবং ৬। ‘ইন্ডিয়া টুডে’-কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এমএসকে প্রসাদ বলেন, “ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের পর আমাদের নির্বাচক মণ্ডলীর কোনও বৈঠক হয়নি, হলে অবশ্যই আমরা রোহিতকে ওপেন করানো নিয়ে আলোচনা করব। রাহুল যথেষ্ট প্রতিভাবান খেলোয়াড়। কিন্তু ব্যাট হাতে একটা খারাপ সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে ও। আশা করা যায় আরও বেশিক্ষণ ক্রিজে থাকলে ও আবার নিজের ফর্ম ফিরে পাবে।”

আরও পড়ুন: বধূ নির্যাতনের মামলা; শামির গ্রেফতারিতে স্থগিতাদেশ দিল আদালত

আরও পড়ুন: বাংলাদেশের বিরুদ্ধে জিতে অস্ট্রেলিয়াকে ছুঁল আফগানরা, কী সেই রেকর্ড? দেখে নেওয়া যাক​

একদিনের ক্রিকেটে নিয়মিত হলেও টেস্টে রোহিতের সেই ফর্ম দেখতে পাওয়া যায় না। ২০১৩ সালে অভিষেক হলেও ছয় বছরে রোহিত খেলেছেন মাত্র ২৭টি টেস্ট। এ বারের বিশ্বকাপে দুরন্ত ফর্মে থাকা রোহিতকে ক্যারিবিয়ান সফরে টেস্ট দলে রাখা হয়েছিল। কিন্তু মিডল অর্ডারে হনুমা বিহারী এবং অজিঙ্ক রাহানে ফর্ম ফিরে পাওয়ায় রোহিতকে খেলানোর কথা ভাবেনি দল। যদিও বীরেন্দ্র সহবাগকে দিয়ে ওপেন করানো সৌরভ বলেছিলেন, রোহিতকে দিয়েও টেস্টে ওপেন করানো যায়। এখন তেমনই চিন্তা ভাবনা দেখা যাচ্ছে প্রধান নির্বাচকের কথাতেও। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে অক্টোবর থেকে শুরু হতে চলা টেস্টের দল নির্বাচনেও এই ভাবনার ছাপ পড়তে পারে বলেই মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।