Advertisement
১৫ জুলাই ২০২৪
FIFA World Cup 2022

ভারের দাঁড়িপাল্লা হেলেছে জাপানের দিকে, স্পেনের বিরুদ্ধে গোল কি বৈধ? কী বলছে ফিফা?

স্পেনের বিরুদ্ধে জাপানের করা দ্বিতীয় গোল নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। অনেকে ভার প্রযুক্তিকে কাঠগড়ায় তুলেছেন। সত্যিই কি সেটা বৈধ গোল ছিল? না কি সিদ্ধান্ত নিতে ভুল করেছে ভার?

জাপানের করা এই গোল নিয়েই শুরু হয়েছে বিতর্ক। ভার প্রযুক্তি ব্যবহার করে জাপানের হয়ে গোল দেন রেফারি।

জাপানের করা এই গোল নিয়েই শুরু হয়েছে বিতর্ক। ভার প্রযুক্তি ব্যবহার করে জাপানের হয়ে গোল দেন রেফারি। গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ০২ ডিসেম্বর ২০২২ ১৭:৫৮
Share: Save:

স্পেনের বিরুদ্ধে জাপানের দ্বিতীয় গোল নিয়ে বিতর্ক এখনও চলছে। কেউ বলছে, পরিষ্কার দেখা গিয়েছে যে বল গোললাইন অতিক্রম করে বেরিয়ে গিয়েছে। তার পরেও কী ভাবে গোল দিয়েছে ভার? আর এক দলের যুক্তি, বলের পুরোটা গোললাইন অতিক্রম করেনি। ন্যায্য গোল ছিল। এই পরিস্থিতিতে কী বলছে ফিফার নিয়ম? সত্যিই কি জাপানের গোল বৈধ ছিল?

ঘটনাটি ঘটেছিল খেলার ৫১ মিনিটের মাথায়। জাপানের ফুটবলারের ক্রস স্পেনের গোলপোস্টের বাইরে দিয়ে গোললাইন অতিক্রম করে যাচ্ছিল। সেই সময় রিৎসু দোয়ান বাঁ পায়ে ক্রস তোলেন। সেই ক্রসে গোল করে জাপানকে এগিয়ে দেন আও তানাকা। কিন্তু রেফারি সঙ্গে সঙ্গে গোল দেননি। দোয়ানের ক্রস করার আগে বল গোললাইন অতিক্রম করে গিয়েছে কি না তা নিয়ে নিশ্চিত ছিলেন না তিনি। তাই ভার প্রযুক্তির সাহায্য নেন রেফারি। ভার জানায়, গোল ন্যায্য। বল গোললাইন অতিক্রমের আগেই ক্রস করেছেন দোয়ান।

কিন্তু এই গোলের পরে সমাজমাধ্যমে অনেক ছবি প্রকাশ্যে আসে, যেখানে দেখানো হয় বল গোললাইন অতিক্রম করে বেরিয়ে গিয়েছে। জাপানকে অবৈধ ভাবে গোল দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেন অনেকে। ওই গোলের কারণেই বিশ্বকাপের প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে উঠতে পারেনি জার্মানি। তাই জার্মানির সমর্থকরা ফিফা ও ভারকে কাঠগড়ায় তোলে।

জাপানের এই গোল নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক।

জাপানের এই গোল নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। ছবি: ইমাগো

গোলটা কি বৈধ ছিল?

ফিফার নিয়ম অনুযায়ী, বল গোললাইন অতিক্রম করেছে কি না, বা কোনও ফুটবলার অফসাইডে ছিল কি না, সব কিছু বিচার করা হয় ‘পাখির চোখে’। অর্থাৎ, উপর থেকে একেবারে সোজাসুজি ক্যামেরা থেকে সেটা বিচার হয়। জাপানের দ্বিতীয় গোলের ক্ষেত্রে পাখির চোখ থেকে দেখলে স্পষ্ট, বলের পুরোটা গোললাইন অতিক্রম করেনি। কিছুটা ভিতরে ছিল। যত ক্ষণ না পুরো বল গোললাইন অতিক্রম করছে তত ক্ষণ সেটা খেলার মধ্যে রয়েছে।

এ ক্ষেত্রে আরও একটি নিয়ম খেটেছে। ফুটবল যে হেতু গোলাকার, তাই শুধু বলের নীচের অংশ (যেখানটা মাটিতে ঠেকে থাকে) দেখলে হবে না। বলের যে কোনও অংশ লাইনের ভিতরে আছে কি না সে দিকে খেয়াল রাখতে। যত ক্ষণ বলের যে কোনও অংশ গোললাইনের ভিতরে রয়েছে তত ক্ষণ খেলা চলবে। জাপানের গোলের ক্ষেত্রেও সেটা হয়েছে। নীচের অংশ গোললাইন অতিক্রম করলেও বলের একটা অংশ লাইনের মধ্যেই ছিল। তাই কোনও ভাবেই সেই বল খেলার বাইরে বেরিয়ে যায়নি। জাপানের দ্বিতীয় গোল বৈধ ছিল। একদম সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভার।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE