Advertisement
১৯ জুলাই ২০২৪
Bhaichung Bhutia

জিজ্ঞেস না করেই তাঁকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে, দাবি ভোটে হেরে যাওয়া ভাইচুংয়ের

২০২২ সালে সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি পদের জন্য ভোটে লড়েছিলেন ভাইচুং। সেখানে প্রাক্তন সতীর্থ কল্যাণ চৌবের বিরুদ্ধে হেরে গিয়েছিলেন। সেই ভাইচুংকে টেকনিক্যাল কমিটিতে নিয়ে এল কল্যাণের নেতৃত্বে থাকা ফেডারেশনই।

Bhaichung Bhutiya

ভাইচুং ভুটিয়া। —ফাইল চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
শেষ আপডেট: ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ২১:১৯
Share: Save:

সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের টেকনিক্যাল কমিটিতে ‘না জানিয়েই’ আনা হয়েছে ভাইচুং ভুটিয়াকে। এমনটাই দাবি করলেন ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক। ২০২২ সালে সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি পদের জন্য ভোটে লড়েছিলেন ভাইচুং। সেখানে প্রাক্তন সতীর্থ কল্যাণ চৌবের বিরুদ্ধে হেরে গিয়েছিলেন। সেই ভাইচুংকে টেকনিক্যাল কমিটিতে নিয়ে এল কল্যাণের নেতৃত্বে থাকা ফেডারেশনই।

টেকনিক্যাল কমিটিতে থেকে মেয়াদ শেষ হওয়ার আগেই সরিয়ে দেওয়া হয়েছে মনোরঞ্জন ভট্টাচার্যকে। সরিয়ে দেওয়া হয়েছে অরুণ মলহোত্র এবং লিংডোকেও। সেই জায়গায় আনা হয়েছে ভাইচুং এবং সন্তোষ সিংহকে। উল্লেখ্য, সন্তোষ কখনও জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পাননি। তিনি বিহারের হয়ে ফুটবল খেলেছেন। এমন এক জনকে টেকনিক্যাল কমিটিতে আনা নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্কও।

২০১৩-১৭ সালে টেকনিক্যাল কমিটির চেয়ারম্যান ছিলেন ভাইচুং। পরে তাঁকে সরিয়ে দায়িত্ব দেওয়া হয় শ্যাম থাপাকে। এর পর দায়িত্ব পান বিজয়ন। ২০২২ সাল থেকে দায়িত্বে তিনি। এ বার চেয়ারম্যান বিজয়নের নেতৃত্বে কাজ করবেন ভাইচুং। তিনি বলেন, “আমাকে জিজ্ঞেস করা হয়নি কিছু। আমার নাম দেখলাম কমিটিতে। জানি না এই কমিটি কে বানিয়েছে। আমার নামই বা কী ভাবে এল। তবে এই নিয়ে আমি কিছু বলিনি। আমি বিজয়নকে সাহায্য করতে রাজি।” কমিটিতে বিজয়ন, ভাইচুং, সন্তোষ ছাড়াও রয়েছেন সাব্বির আলি, থঙ্গাম তাবাবি দেবী এবং ভিক্টর অমলরাজ।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Bhaichung Bhutia AIFF Kalyan Chaubey
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE