এ রাজ্যের রাজ্যপাল হয়ে এসে গত তিন মাসে অন্তত এক হাজার বই পড়ে ফেলেছেন বলে দাবি করলেন জগদীপ ধনখড়। শুক্রবার শোভাবাজার রাজবাড়ির নাটমন্দিরে একটি অনুষ্ঠানে রাজ্যপাল বলেন, ‘‘আমি এখানে এসেছি তিন মাস হল। এই সময়ের মধ্যে আমি এক হাজারের বেশি বই পড়েছি।’’ এর পরেই বই, শিক্ষা, সংস্কৃতি, শিল্প ও মননের সঙ্গে বাংলার আত্মিক সম্পর্কের কথা তুলে ধরেন রাজ্যপাল। তাঁর বক্তৃতার নির্যাস— শিক্ষা, সংস্কৃতি, মেধা— সব দিক থেকেই দুনিয়ার মধ্যে ভারত শ্রেষ্ঠ এবং ভারতের মধ্যে বাংলা। আর শিল্প-সংস্কৃতির ক্ষেত্রে বাংলার কোনও তুলনা জগতে নেই। রাজ্যপাল বলেন, ‘‘আমি বাংলার মানুষের সঙ্গে আন্তরিক ভাবে মিশতে চাই। বাংলার সাহিত্য, সংস্কৃতি জানতে চাই। কিন্তু সেখানে প্রোটোকল কখনও কখনও বাধা হয়ে দাঁড়ায়। আমি প্রোটোকলের লোক নই। আমি সাধারণ মানুষ। তবু প্রোটোকল মানতে হয়।’’ রাজ্যপালের সাম্প্রতিক কর্মকাণ্ডকে ‘অতি সক্রিয়তা’ বলে মনে করছে শাসক শিবির। রাজ্যপাল এ দিন বলেন, ‘‘প্রোটোকলের কারণে আমি সব বিষয়ে বলতে পারি না। কিন্তু আমার নীরবতাকে ভুল বোঝার সম্ভাবনা তৈরি হলে মুখ খুলি।’’