Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৪ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

Death: ৪ দিন নিখোঁজ থাকার পর হাসিমারায় সড়কের পাশে এএসআই-এর দেহ,ঘনাচ্ছে রহস্য

নিজস্ব সংবাদদাতা
আলিপুরদুয়ার ০৫ ডিসেম্বর ২০২১ ১৭:১০
সড়কের ধারে মিলল পুলিশকর্মীর দেহ।

সড়কের ধারে মিলল পুলিশকর্মীর দেহ।
—ফাইল চিত্র।

চার দিন নিখোঁজ থাকার পর রবিবার সকালে রাস্তার ধার থেকে উদ্ধার হল এক অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব ইনস্পেক্টর (এএসআই)-এর দেহ। এই ঘটনা ঘটেছে হাসিমারায়, ১০ নম্বর বিচ চা বাগানের কাছে। ভুটানগামী এশিয়ান হাইওয়ে সড়কের পাশে ঝোপঝাড় থেকে উদ্ধার হয়েছে জয়ঁগা থানার ট্রাফিক এএসআই রতন করের মৃতদেহ। রতনের মৃত্যু ঘিরে রহস্য ঘনিয়েছে।
গত বুধবার থেকে নিখোঁজ ছিলেন ট্রাফিক এএসআই রতন। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, রবিবার ভোরে তাঁর দেহ ভুটানগামী এশিয়ান হাইওয়ে সড়কের পাশ থেকে উদ্ধার হয়। ঘটনাস্থলে জয়গাঁ থানা, কালচিনি থানা, হাসিমারা ফাঁড়ি এবং আলিপুরদুয়ারের পুলিশকর্মীরা গিয়ে এলাকাটি ঘিরে ফেলেন। আনা হয় পুলিশ কুকুরও। তল্লাশি চালাতে চালাতে ওই কুকুরটি দলসিংপাড়া মালগুদাম পর্যন্ত যায়। রতনের দেহের সঙ্গে মিলেছে তাঁর বাইক এবং হেলমেটও। তাৎপর্য পূর্ণ ভাবে রতনের দেহ যেখানে পাওয়া গিয়েছে তার খুব কাছেই নাকা তল্লাশি চালায় হাসিমারা ডুয়ার্স ধাবা পুলিশ। গত বুধবার ওই এলাকায় নাকা তল্লাশির কাজে যোগ দেওয়ার কথা ছিল রতনের।

Advertisement

রতনকে খুন করা হয়েছে না কি দুর্ঘটনায় তাঁর মৃত্যু হয়েছে তা নিয়ে রহস্য দানা বেঁধেছে। আলিপুরদুয়ারের পুলিশ সুপার ভোলানাথ পাণ্ডে বলেন, ‘‘দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। সেই রিপোর্ট এলে বোঝা যাবে কী ঘটেছে।’’ পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত বুধবার দুপুর ১২টা নাগাদ জয়ঁগা থানা থেকে হাসিমারা পুলিশ চেকিং পয়েন্টের উদ্দেশে রওনা দিয়েছিলেন রতন। দলসিংপাড়া অবধি বাইকে চড়ে এসেছিলেন তিনি। কিন্ত তার পর থেকে তাঁর খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না।

আরও পড়ুন

Advertisement