Advertisement
২৬ নভেম্বর ২০২২
Online Scam

আমির খানের আরও টাকার হদিস, তদন্তে নেমে ১৪ কোটিরও বেশি টাকা বাজেয়াপ্ত কলকাতা পুলিশের

একটি মোবাইল গেমিং অ্যাপের মাধ্যমে আর্থিক প্রতারণার অভিযোগের তদন্তে নেমে ১০ সেপ্টেম্বর শহরের ছ’টি জায়গায় তল্লাশি অভিযান করেছিল এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)। আমিরের বাড়িতেও তল্লাশি হয়েছিল।

গাজিয়াবাদ থেকে আমিরকে গ্রেফতার করে কলকাতা পুলিশ।

গাজিয়াবাদ থেকে আমিরকে গ্রেফতার করে কলকাতা পুলিশ। নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ ২০:৩৮
Share: Save:

গার্ডেনরিচের ব্যবসায়ী আমির খানের আরও টাকার হদিস। কলকাতা পুলিশ তদন্তে নেমে প্রায় ১৪ কোটি ৫৩ লক্ষ টাকা বাজেয়াপ্ত করেছে। ক্রিপ্টোকারেন্সিতে ওই টাকা বিনিয়োগ করা হয়েছিল বলে পুলিশ সূত্রে দাবি। ‘বিনান্স’ নামে একটি প্লাটফর্মে ট্রান্সফার করা হয়েছিল ওই টাকা। মঙ্গলবার তা বাজেয়াপ্ত করল পুলিশ।

Advertisement

একটি মোবাইল গেমিং অ্যাপের মাধ্যমে আর্থিক প্রতারণার অভিযোগের তদন্তে নেমে ১০ সেপ্টেম্বর শহরের ছ’টি জায়গায় তল্লাশি অভিযান করেছিল এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)। মেটিয়াবুরুজের পরিবহণ ব্যবসায়ী নিসার আলির ছোট ছেলে আমিরের বাড়িতেও তল্লাশি চালানো হয়েছিল। ওই বাড়ির খাটের তলা থেকে ১৭ কোটি ৩২ লক্ষ টাকা উদ্ধার হয়। যদিও সেই সময় পলাতক ছিলেন আমির।

ইডি দাবি করেছিল, একটি মোবাইল গেমিং অ্যাপের মাধ্যমে বহু গ্রাহককে প্রতারণার অভিযোগ ওঠে আমির-সহ কয়েক জনের বিরুদ্ধে। গত ১৫ ফেব্রুয়ারি পার্ক স্ট্রিট থানায় একটি এফআইআরও দায়ের হয়েছিল। তার পরেই তল্লাশি অভিযান চালায় ইডি। তাঁরা এ-ও দাবি করেছিল, তদন্তে বন্দর এলাকার এক তৃণমূল কাউন্সিলরের নাম জড়িয়েছিল।

গত শুক্রবার রাতে গাজিয়াবাদ থেকে আমিরকে গ্রেফতার করে কলকাতা পুলিশ। তাঁকে ১৪ দিনের পুলিশি হেফাজতে পাঠিয়েছে আদালত। এই মামলার তদন্ত করবে কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দা শাখা। তদন্তে জানা গিয়েছে, বেআইনি টাকা বিদেশে ক্রিপ্টোকারেন্সিতে ‘কনভার্ট’ করে রেখেছিলেন আমির।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.