Advertisement
০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Selfmade Car

মেসিকে চাপানোই স্বপ্ন, নিজের হাতে গাড়ি তৈরি করে নীল-সাদা রং করলেন গ্যারাজকর্মী

প্রতি বছর ফুটবল বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার পতাকা ওড়ান। কিন্তু এ বছর নতুন কিছু করতে চাইছিলেন লিটন শেখ। তাই নিজের হাতে একটি জিপ গাড়িই তৈরি করে ফেললেন।

 ২০০৮ সাল থেকে আর্জেন্টিনা দলকে সমর্থন করেন লিটন। লিয়োনেল মেসিরও অন্ধ ভক্ত তিনি।

২০০৮ সাল থেকে আর্জেন্টিনা দলকে সমর্থন করেন লিটন। লিয়োনেল মেসিরও অন্ধ ভক্ত তিনি। ছবি: প্রথম আলো।

সংবাদ সংস্থা
ঢাকা শেষ আপডেট: ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ ১৭:১৭
Share: Save:

দূর থেকে ছুটে আসছে একটি জিপ গাড়ি। কিন্তু জিপের চেহারা একেবারেই আলাদা। এক নজরে দেখলে মনে হয়, আর্জেন্টিনার পতাকায় মোড়া। গাড়ির মালিক যে আর্জেন্টিনা দলের সমর্থক! প্রতি বছর ফুটবল বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার পতাকা ওড়ান। কিন্তু এ বছর নতুন কিছু করতে চাইছিলেন তিনি। তাই নিজের হাতে একটি জিপ গাড়ি-ই তৈরি করে ফেললেন বাংলাদেশের এক বাসিন্দা। একটি গ্যারাজে গাড়ি সারাইয়ের কাজ করেন তিনি।

Advertisement

বাংলাদেশি সংবাদমাধ্যম ‘প্রথম আলো’ সূত্রের খবর, গাড়িটি যিনি তৈরি করেছেন, তাঁর নাম লিটন শেখ। ৩৪ বছর বয়স তাঁর। ২০০৮ সাল থেকে আর্জেন্টিনা দলকে সমর্থন করেন লিটন। লিয়োনেল মেসিরও অন্ধ ভক্ত তিনি। ফুটবল বিশ্বকাপের সময় আর্জেন্টিনার পতাকা ওড়ালেও কিন্তু এই বছর অন্য কিছু করতে চেয়েছেন তিনি। আর্জেন্টিনা দলের প্রতি সম্মান জানাতে তার পতাকার আদলেই গাড়িটি তৈরি করেন লিটন। গ্যারাজে কাজ করার পাশাপাশি গাড়ি তৈরির বিভিন্ন যন্ত্রাংশ দিয়ে তিনি এই গাড়িটি বানান। মোটরবাইকের ইঞ্জিন দিয়ে ছোট জিপ গাড়ির আদলে এই গাড়ি বানিয়েছেন তিনি। গাড়িটির সামনে চালকের পাশে ১ জন এবং পিছনে ৩ জন বসতে পারেন। গাড়ি রং করার ব্যাপারে তাঁর খরচ হয়েছে প্রায় ১০ হাজার টাকা। গাড়িটির নাম তিনি দিয়েছেন ‘এল জিপ’। নিজের নামের ইংরেজি বানানের আদ্যক্ষর থেকে তিনি এই নামকরণ করেন। গাড়িটির উপর লিয়োনেল মেসির একটি স্টিকারও লাগিয়েছেন তিনি।

সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবর, বাংলাদেশের ফরিদপুরে মুরালীদাহ গ্রামের বাসিন্দা লিটন। পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্ত পড়াশোনা করেছেন তিনি। ‘প্রথম আলো’কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, সামর্থ্য থাকলে তিনি এই গাড়ি নিয়ে কাতারে যেতেন। অন্তত একটি ম্যাচও দেখতেন লিটন। তিনি বলেন, ‘‘মেসিকে গাড়িতে নিয়ে ঘুরে বেড়ানোর ইচ্ছাও আমার আছে। কিন্তু সেই সামর্থ্য ও সুযোগ না থাকায় গাড়িটি নিয়ে বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়াই ও আর্জেন্টিনার সমর্থকদের আনন্দ দিই।’’ গাড়িটি নিজের প্রয়োজনেই ব্যবহার করেন তিনি। মাঝে মধ্যে স্ত্রী এবং দুই ছেলেকে নিয়ে ঘুরতে বার হন লিটন।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.