• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পেনশন দিয়ে জঙ্গি পুষছে পাকিস্তান, রাষ্ট্রপুঞ্জে কাশ্মীর প্রসঙ্গে ইমরানকে কড়া জবাব ভারতের

Imran Khan
ইমরান খান।—ফাইল চিত্র।

সরকারি কোষাগার থেকে পেনশন দিয়ে জঙ্গি পুষছে পাকিস্তান। বিগত সত্তর বছর ধরে দেশ থেকে সংখ্যালঘুদের অস্তিত্ব মুছে ফেলার চেষ্টা করছে। কাশ্মীর প্রসঙ্গ খুঁচিয়ে তোলায় রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় ইমরান খান সরকারকে এ ভাবেই কড়া ভাষায় আক্রমণ করল ভারত। জানিয়ে দিল, ভূরি ভূরি মিথ্যে বলে পরিস্থিতি তাতিয়ে তোলা ছাড়া পাকিস্তানের আর কোনও কাজ নেই।

শুক্রবার রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় ফের কাশ্মীর প্রসঙ্গ টেনে আনেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তিনি বলেন, ‘‘পাকিস্তান বরাবর শান্তিপূর্ণ মীমাংসার পক্ষে সওয়াল করে এসেছে। ২০১৯-এর ৫ অগস্ট নেওয়া সিদ্ধান্ত বাতিল করতে হবে ভারতকে। সেনার বদ্ধমুষ্টি থেকে জম্মু-কাশ্মীরকে রেহাই দিতে হবে। সেখানে মানবাধিকার লঙ্ঘন হতে দেওয়া যাবে না।’’

প্রত্যুত্তরের অধিকার প্রয়োগ করে ইমরানের এই মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ করেন রাষ্ট্রপুঞ্জে ভারতীয় প্রতিনিধি ফার্স্ট সেক্রেটারি মিহিতো বিনিতো। তিনি বলেন, ‘‘জম্মু-কাশ্মীর ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ। তা নিয়ে যদি কোনও বিরোধ থেকে থাকে, তা হল এই যে উপত্যকার একটি অংশ এখনও বেআইনি ভাবে দখল করে রেখেছে পাকিস্তান। অবিলম্বে পাকিস্তানের কাছে বেআইনি ভাবে দখল করে রাখা সমস্ত জায়গা খালি করার দাবি জানাচ্ছি আমরা।’’

আরও পড়ুন: অবতরণের আগে ভেঙে পড়ল বায়ুসেনার বিমান, ইউক্রেনে মৃত ২৫​

এর পরই ইমরানকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেন মিহিতো। তিনি বলেন, ‘‘আজ যিনি রাষ্ট্রপু্ঞ্জে বিষ উগরে দিচ্ছেন, ২০১৯ সালে আমেরিকায় গিয়ে সর্বসমক্ষে দেশে ৩০ থেকে ৪০ হাজার জঙ্গি থাকার কথা স্বীকার করেছিলেন তিনি। মেনে নিয়েছিলেন যে, পাকিস্তানে প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত ওই সব জঙ্গিরা আফগানিস্তান এবং ভারতের অন্তর্ভুক্ত জম্মু-কাশ্মীরে নাশকতামূলক কাজে লিপ্ত। পাকিস্তান হল সেই দেশ, যারা সরকারি কোষাগার থেকে পেনশন দিয়ে জঙ্গিদের পোষে। গত ৭০ বছর ধরে ধারাবাহিক ভাবে দেশ থেকে হিন্দু, খ্রিস্টান, শিখ এবং অন্যান্য সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের অস্তিত্ব মুছে ফেলছে ওরা। এই হলো ওদের কৃতিত্ব। ওদের এই নেতাই ওসামা বিন লাদেনকে শহিদ বলেছিলেন।’’

আরও পড়ুন: মাদক মামলায় জেরা দীপিকাকে, এনসিবি-র দফতরে অভিনেত্রী​

নিজের কৃতিত্ব বলে কিছু নেই, বিশ্বকে পরামর্শ দেওয়ার মতো কিছু নেই, তাই ভূরি ভূরি মিথ্যে বলে ইমরান পরিস্থিতি তাতিয়ে তোলার চেষ্টা করছেন বলেও অভিযোগ করেন মিহিতো। যে ভাবে পাকিস্তান সরকার সন্ত্রাসে মদত দিয়ে আসছে, তার জন্য তাদের বিরুদ্ধে কড়া অবস্থান নেওয়া প্রয়োজন বলেও মন্তব্য করেন তিনি। এর আগে ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে রাষ্ট্রপুঞ্জে বক্তৃতা করার সময় ইমরান খান কাশ্মীর প্রসঙ্গ টেনে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে আক্রমণ করলে, সভা ছেড়ে বেরিয়ে যান মিহিতো।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন