সমানে সুড়সুড় করে যাচ্ছে কান, সঙ্গে প্রচণ্ড যন্ত্রণা। তা থেকে মুক্তি পেতে চিকিৎসকের কাছে গিয়েছিলেন ভিয়েতনামের দিয়েন বিয়েন প্রদেশের বাসিন্দা এক মহিলা। আর তাঁর কানের পরীক্ষা করার সময় চিকিৎসকের চক্ষু তো চড়কগাছ!

কানের ভিতর ভাল করে পরীক্ষার জন্য ওই চিকিৎসক এন্ডোস্কোপির সাহায্য নিয়েছিলেন। এই পদ্ধতিতে লম্বা, নমনীয় নল ঢোকানো হল কানের ভিতর। সেই টিউবের অগ্রভাগে থাকে লাইট ও ক্যামেরা। তার মাধ্যমে কানের ভিতরের চিত্র চিকিৎসকের ঘরে থাকা টিভি স্ক্রিনে ফুটে ওঠে। ওই মহিলার কানের ভিতর সেই নল ঢোকাতেই দেখা গেল তাঁর কানের মধ্যে কালো কালো স্পট। তার পর চিকিৎসক বুঝতে পারলেন, মহিলার কানে বাসা বেঁধেছে এক ডজন ছত্রাক। তার পর কানের মধ্যে বাসা বাঁধা সেই ছত্রাক পরিষ্কার করে মহিলার কানের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা করেন ওই চিকিৎসক।

কানের ভিতর এন্ডোস্কোপি করে ছত্রাক পাওয়ার ভিডিয়ো সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই ভাইরাল হয়েছে। জানা গিয়েছে, নোংরা জমে ফাঙ্গাল ইনফেকশনের কারণেই ওই মহিলার কানে এ রকম হয়েছিল। তবে ভিয়েতনামের ওই মহিলার নাম ও চিকিৎসকের নাম জানা যায়নি। 

 

আরও পড়ুন: ‘ডায়নোসরের’ মতো কুমিরের সঙ্গে ম্যাটের ‘খেলা’ দেখে কপালে চোখ নেটিজেনদের

আরও পড়ুন: ৯/১১-এ রাত ৯টা ১১ মিনিটে জন্ম নেওয়া এই শিশুর ওজন ৯ পাউন্ড ১১ আউন্স!