• কৌশিক দাশ
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

লিন-ঝড় দেখে যুবির প্রশ্ন, কেন ছাড়ল কেকেআর

Chris Lynn
বিধ্বংসী: ৩০ বলে ৯১ রান ক্রিস লিনের। ফাইল চিত্র

Advertisement

‘লিন্মোদনা’ শুরু হয়ে গেল মরুশহরে। চলতি টি-টেন লিগে সোমবার রাতে ক্রিস লিনের ব্যাট থেকে পাওয়া গেল ৩০ বলে ৯১ রান। পাওয়া গেল ন’টি চার, সাতটি ছয়। বছর দু’য়েক আগে  আইপিএলে এই ধরনের ইনিংসই জন্ম দিয়েছিল শব্দটার— লিনস্যানিটি বা লিন্মোদনা। তখন তিনি ছিলেন কলকাতা নাইট রাইডার্সের প্রধান অস্ত্র। বিপক্ষ বোলারদের দুঃস্বপ্ন। 

কিন্তু এ বার এই অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটার দুঃস্বপ্ন হয়ে উঠতে পারেন নাইট বোলারদের কাছে। লিনকে যে আপাতত ছেড়ে দিয়েছে কেকেআর! কলকাতার নিলামে তাঁকে আবার না কিনলে শাহরুখ খানের ‘শত্রু’ হয়ে উঠবেন লিন। কেকেআর ম্যানেজমেন্টের এই সিদ্ধান্তকে পুরোপুরি ভুল বলছেন যুবরাজ সিংহ। টি-টেন লিগে যিনি লিনের দল মরাঠা আরাবিয়ান্সের হয়েই খেলেন। পিঠের চোটের জন্য এই ম্যাচে খেলেননি তিনি। ডাগআউটে বসে লিনের ইনিংস দেখে বিস্ময়ে হতবাক স্বয়ং যুবরাজ। পরে সাংবাদিকদের যুবি বলেন, ‘‘সত্যিই অবিশ্বাস্য ইনিংস। এই তো আমরা আলোচনা করছিলাম, খেলাটা কী ভাবে বদলে যাচ্ছে। এখন ১০ ওভারের মধ্যে ব্যাটসম্যান সেঞ্চুরির কাছে চলে আসছে।’’ টি-টেন লিগে এটাই এখনও পর্যন্ত সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোর। আগে যে রেকর্ড ছিল ইংল্যান্ডের অ্যালেক্স হেলসের (৮৭)। লিনের দল (১৩৮-২) ২৪ রানে হারাল টিম আবু ধাবিকে।

এর পরেই নিজের মনের কথাটা খোলাখুলি বলে দিচ্ছেন যুবরাজ, ‘‘আমি আইপিএলে ক্রিসের অনেক ইনিংস দেখেছি। কেকেআরের হয়ে দারুণ সব শুরু করত ও। বুঝতে পারছি না ক্রিস লিনের মতো এক জন ব্যাটসম্যানকে কী ভাবে ছেড়ে দিল কেকেআর। খুবই খারাপ সিদ্ধান্ত।’’ এর পরে কিছুটা যেন মজা করেই বলে উঠলেন, ‘‘এই নিয়ে এসআরকে-কে একটা টেক্সট মেসেজ পাঠাতে হবে দেখছি!’’ যুবরাজের কথাটা এ দিন বারবার ঘুরপাক খেয়েছে আবু ধাবির শেখ জায়েদ মাঠের প্রেসবক্সে। কেন লিনকে ছেড়ে দিল কেকেআর? কলকাতার নিলামে কি আবার এই বিধ্বংসী ব্যাটসম্যানকে কিনে নেবে শাহরুখের দল?

ম্যাচের পরে আনন্দবাজারের তরফে লিনকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, আপনি কি এই ইনিংসটার মাধ্যমে কলকাতা নাইট রাইডার্সকে কোনও বিশেষ বার্তা পাঠালেন যে, দেখো কত বড় ভুল করেছ আমাকে ছেড়ে দিয়ে? হাল্কা হেসে লিনের জবাব, ‘‘জানতাম এ রকম একটা আক্রমণাত্মক প্রশ্ন আসবে। না, না এ ভাবে বলছেন কেন? কেকেআরের সঙ্গে আমার সম্পর্ক খারাপ হয়নি। আমি ওদের উপরে ক্ষুব্ধও নই। আমার চেয়েও অনেক ভাল, ভাল ক্রিকেটারকে আইপিএল দলগুলো ছেড়ে দিয়েছে। এখন ব্রেন্ডন ম্যাকালামের (কেকেআরের কোচ) এক নম্বর কাজটা হবে দলকে আইপিএল চ্যাম্পিয়ন করা।’’

এখনও সুযোগ আছে লিনকে ফিরিয়ে নেওয়ার। পরের মাসের নিলামে যদি লিনকে ফের কিনে নেয় কেকেআর। কী ভাবে দেখছেন ব্যাপারটা? লিনের জবাব, ‘‘এখানে আরও রান করতে চাই। তা হলে কোচেরা হয়তো 

আমাকে নিয়ে ভাববেন।’’ 

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন