আসানসোলে বিজেপি নেতাকে বেধড়ক মার, আক্রান্ত আরও ৫, কাঠগড়ায় তৃণমূল
বাবুল বলেন, ‘‘আসানসোল উত্তরের মণ্ডল সভাপতি (তিন নম্বর) হিসেবে ইন্দ্রনীল ভোটে ভাল কাজ করছিল। তিনি জনপ্রিয় নেতা। সেই কারণেই ইন্দ্রনীল এলাকার মন্ত্রীর পোষা গুন্ডাদের টার্গেট হয়েছেন। সোমবারের ভোটেই মানুষ জবাব দেবেন।’’
Babul

আহত বিজেপি নেতাকে দেখতে হাসপাতালে বাবুল সুপ্রিয়। —নিজস্ব চিত্র

লোকসভা ভোটের মুখে উত্তপ্ত আসানসোল। নির্বাচনী কার্যালয়ে কাজ সেরে ফেরার পথে আক্রান্ত হলেন আসানসোলের বিজেপি নেতা আইনজীবী ইন্দ্রনীল ঘোষ। তাঁর সঙ্গে আরও পাঁচ বিজেপি কর্মী গুরুতর আহত হয়েছেন। বিজেপির অভিযোগ, হামলাকারীরা রাজ্যের মন্ত্রী মলয় ঘটকের বিশ্বস্ত কর্মী। যদিও ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবার রাত এগারোটা নাগাদ আসানসোলের হিল ভিউ নর্থে ইন্দ্রনীল নিজের বাড়ির দলীয় কার্যালয়ে কাজ সেরে গেট বন্ধ করছিলেন। সেই সময় বাইকে করে এসে তাঁর উপর হামলা চালায় ১০-১২ জন দুষ্কৃতী। অভিযোগ, বাড়িতে ভাঙচুর চালানোর পাশাপাশি বেধড়ক মারধর করা হয় ইন্দ্রনীলকে। তাঁর সঙ্গে থাকা আরও কয়েক জন কর্মীকেও পেটানো হয়। তাঁদের এক জনের হাত ভেঙে দেওয়া হয়, অন্য জনকে মাথা ফাটিয়ে দেওয়া হয়। রাতেই তিন জনকে আসানসোল জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

খবর পেয়ে রাত একটা নাগাদ তাঁকে দেখতে হাসপাতালে যান আসানসোলের বিজেপি প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয়। বাবুল বলেন, ‘‘আসানসোল উত্তরের মণ্ডল সভাপতি (তিন নম্বর) হিসেবে ইন্দ্রনীল ভোটে ভাল কাজ করছিল। তিনি জনপ্রিয় নেতা। সেই কারণেই ইন্দ্রনীল এলাকার মন্ত্রীর পোষা গুন্ডাদের টার্গেট হয়েছেন। সোমবারের ভোটেই মানুষ জবাব দেবেন।’’

আরও পড়ুন: কংগ্রেস কর্মী খুন হয়েছেন বুথের ১০০ মিটারের বাইরে! দাবি মুর্শিদাবাদ জেলা প্রশাসনের

আরও পডু়ন: আমিই প্রার্থী,মনোনয়ন জমা দিয়ে দাবি নেতার

হাসপাতাল সূত্রে খবর, মারধরে ইন্দ্রনীলের চোখের নীচে ফেটে যায়। সাতটি সেলাই করতে হয়। মাথাতেও আঘাত লাগে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে আসানসোল উত্তর  থানার পুলিশ।

২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের ফল

আপনার মত