• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

করোনা-রোগীদের উপর হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন প্রয়োগ বন্ধ করল হু

Donald Trump and Tedros Adhanom
ডোনাল্ড ট্রাম্প ও টেডরস অ্যাডহ্যানম।

করোনার হাত থেকে রেহাই পেতে দৈনিক হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন খাওয়ার কথা আগেই জানিয়ে দিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। রবিবারই এক সাক্ষাৎকারে বুক বাজিয়ে বলেন, ইতিমধ্যেই ওই ওষুধটির দু’সপ্তাহের কোর্স শেষ করে ফেলেছেন তিনি। কিন্তু তার পর দিনই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) জানিয়ে দিল, করোনা রোগীদের উপর ম্যালেরিয়ার ওই প্রতিষেধক পরীক্ষা করার বিষয়টি স্থগিত রাখছে তারা। সংস্থাটির মতে,  যে সব কোভিড ১৯ রোগীদের উপর হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন ব্যবহার করা হয়েছে তাঁদের মৃত্যুর হার বেশি।

করোনার দাওয়াই হিসাবে শুরু থেকেই হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের পক্ষে সওয়াল করে আসছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ওই ওষুধকে কখনও ‘ভগবানের দান’, কখনও বা ‘গেম চেঞ্জার’ বলে আখ্যা দিয়েছেন তিনি। এর মধ্যেই গত সপ্তাহে তিনি বলে দেন, করোনা ঠেকাতে তিনি নিয়মিত হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন খাচ্ছেন। তা নিয়েই রবিবার এক সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প বলেন, ‘‘সদ্য ওষুধের কোর্স শেষ করলাম। দেখতেই পাচ্ছেন, আমি এখনও এখানেই রয়েছি।’’ করোনার চিকিৎসায় হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের ব্যবহার নিয়ে সবুজ সঙ্কেত দেয়নি আমেরিকার ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (এফডিএ)। কিন্তু ম্যালেরিয়ার ওই প্রতিষেধক নিয়ে সওয়াল করতে গিয়ে ট্রাম্প বলেন, ‘‘আমি এই ওষুধটি সম্পর্কে অসাধারণ তথ্য পেয়েছি। অনেকেই মনে করেন, এই ওষুধটা তাঁদের জীবন বাঁচিয়েছে। চিকিৎসকরাও সেই সব রিপোর্ট তুলে ধরছেন। ফ্রান্স ও ইটালিতে অবিশ্বাস্য পরীক্ষা হয়েছে।’’

ট্রাম্প এই দাবি করেছিলেন রবিবার। আর সোমবারই নয়া মোড় নিল ওই ঘটনা। ওই দিন সকলকে চমকে দিয়ে, হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন নিয়ে বিশ্ব জুড়েই যাবতীয় পরীক্ষানিরীক্ষা আপাতত স্থগিত রাখার কথা জানিয়ে দেয় হু। এই পদক্ষেপের কারণ হিসাবে হু-এর প্রধান টেডরস অ্যাডহ্যানম ঘেব্রেসিয়াস জানিয়ে দেন, যাঁরা হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন খাচ্ছেন তাঁদের জীবনের ঝুঁকি বেশি এবং হৃদযন্ত্রে সমস্যা তৈরি হওয়ার আঙ্কাও রয়েছে। এ নিয়ে চিকিৎসা বিজ্ঞান সংক্রান্ত পত্রিকা ‘ল্যানসেট’ –এ একটি গবেষণাপত্রও প্রকাশিত হয়েছে। করোনা রোগীদের উপর রেমডেসিভির নিয়ে পরীক্ষা চলবে বলে জানিয়ে দিয়েছেন হু-এর প্রধান।

 

আরও পড়ুন: ব্রাজিল থেকে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা আমেরিকার

আমেরিকায় যখন করোনা সদ্য হানা দিয়েছিল তখন থেকেই হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের সুফল নিয়ে সওয়াল করে আসছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ভারত থেকে বিপুল পরিমাণ ওই ওষুধ সংগ্রহও করে রাখেন তিনি। এর মাঝেই অবশ্য করোনা রুখতে একাধিক দাওয়াই বাতলেছিলেন ট্রাম্প। এক বার জীবাণুনাশক ইনজেক্ট করে ফুসফুস সাফ করার প্রস্তাব দিয়ে বসেন ট্রাম্প। এমনকি জোরালো আলো ঢুকিয়ে করোনা তাড়ানো নিয়েও ভাবতে বলেন। তবে বারবারই হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের সুফল নিয়ে সওয়াল করে এসেছেন তিনি। ওষুধটি সব মার্কিন নাগরিকেরই খাওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন তিনি। সে সময় দেশবাসীকে পরামর্শ দেওয়ার সুরেই তিনি বলেন, ‘‘এতে আপনাদের কী যায় আসে?’’

আরও পড়ুন: কমে যায় টি-সেল, কোভিড যুদ্ধে নয়া দিশা দেখাচ্ছেন ব্রিটিশ বিজ্ঞানীরা

এর মধ্যেই অবশ্য গোটা আমেরিকা জুড়ে তাণ্ডব শুরু করেছে করোনা। সারা দেশে আক্রান্তের সংখ্যা এখন সাড়ে ১৬ লক্ষের বেশি। মৃত্যু হয়েছে ৯৮ হাজারের বেশি মানুষের। এই বিপুল বিপর্যয়ের মুখে দাঁড়িয়েও,  হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের উপর থেকে ভরসা টলেনি ট্রাম্পের। কিন্তু ম্যালেরিয়ার ওই প্রতিষেধক নিয়ে হু অবশ্য ভিন্ন বার্তা দিল।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন