• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বাঁদরের সেল্ফি, খোয়া যাওয়া মোবাইলের গ্যালারি ভরা বাঁদরামি

Moneky
প্রতীকী চিত্র।

ফোন চুরি যাওয়া তো একেবারেই সাধরণ ব্যাপার। চুরি যাওয়া ফোন ফিরে পাওয়ার ভাগ্যও হয় কারও কারও। তবে কখনও ফিরে পাওয়া ফোনে চোরের ছবি দেখতে পাওয়া যায় কি? কিন্তু সেই চোর যদি হয় বাঁদর তবে তেমনটা হতেই পারে।

মালয়েশিয়ার বাটু পাহাত শহরের এক ছাত্র জ্যাকরিডজ রোডজি শুক্রবার রাতে বালিশের পাশে মোবাইলটি রেখে ঘুমতে যায়। পরের দিন শনিবার সকালে উঠে থেকে আর ফোনটি দেখতে পায়নি। বুঝতেই পারে ফোন চুরি হয়ে গিয়েছে। কিন্তু ঘর থেকে ফোন ছাড়া আর কিছুই চুরি যায়নি। ফলে তার কেমন যেন সন্দেহ হয়।

শনিবার সারাদিন নানা ভাবে ফোন খোঁজার চেষ্টা চলে। জ্যাকরিডজের বাবা মাঝে মাঝেই ফোন করতে থাকেন ছেলের নম্বরে। রিং হয় কিন্তু কেউ সেই ফোন তোলে না। এই করে গোটা দিন কেটে যায়। রবিবার জ্যাকরিডজ ফোনটিকে ট্র্যাক করার চেষ্টা করে। বুঝতে পারে বাড়ির কাছাকাছিই ফোনটি রয়েছে।

আরও পড়ুন: ধাপার মাঠ নয়, ভাড়াটিয়ার বাড়ি, কী করে এই অবস্থা হল দেখুন

রবিবার সকাল থেকে জ্যাকরিডজের বাবা ফের ফোন করতে থাকেন ছেলের নম্বরে। এবার বাড়ির পিছনের দিকে জঙ্গলের মধ্যে ফোনের রিং শোনা যায়। এবার সবাই উৎসাহিত হয়ে ফোন খুঁজতে শুরু করেন। অবশেষে জঙ্গলের মধ্যেই একটি গাছের নীচে ফোনের হদিশ মেলে। জ্যাকের দাদু মজা করে বলেন, দেখ হয়তো ফোনে চোরের ছবিও পাওয়া যাবে।

আরও পড়ুন: ষোড়শী কন্যা যেন সব্যসাচী, একসঙ্গে দু’হাতে লেখে, তাও আবার উল্টো মুখে

ফোন বাড়িতে এনে জ্যাক দেখে সত্যিই তাতে ‘চোর’-এর ছবি রয়েছে। ফোনের গ্যালারি জুড়ে বাঁদরের সেল্ফিতে ভর্তি। এমনকি ভিডিয়োও রয়েছে তাতে। ছবি, ভিডিয়ো দেখে বোঝা যায় বাঁদরটি ফোনটিকে খাওয়ারও চেষ্টা করিছিল। ফোনে কী কী ছবি রয়েছে তার একটি ভিডিয়ো সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে। আর এমন এক কাণ্ডকারখানার ঘটনা ভাইরাল হতেও সময় নেয়নি। নেটাগরিকরা একের পর এক মজার কমেন্ট করেছেন সেই পোস্টে।

দেখুন সেই ভিডিয়ো—

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন