• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পাথর পড়ে দুমড়ে-মুচড়ে গেল গাড়ি, চালকের কী হল দেখুন!

Car
টুইটার থেকে নেওয়া ছবি।

একেই বলে, রাখে হরি মারে কে। একটু এদিক-ওদিক হলেই প্রাণ নিয়ে টানাটানি হতে পারত। কিন্তু ভাগ্যগুণে তা হল না। সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন একটি ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে যা দেখলে যে কেউ বলবেন, "ভাগ্যিস আমি সেখানে ছিলাম না।" কিন্তু তাও প্রশ্ন উঠছে, ওই ব্যক্তি ভাগ্যবান না হতভাগ্য!

ওড়িশার ভুবনেশ্বরে কর্মরত আইপিএস অফিসার অরুণ বোথরা তাঁর টুইটার হ্যান্ডলে ভিডিয়োটি শেয়ার করেছেন। সেখানে দেখা যাচ্ছে, রাস্তার ধারে গাড়ি দাঁড় করিয়ে রেখেছেন এক ব্যক্তি। নিজেও গাড়ি থেকে বেরিয়ে কয়েক ফুট দূরে দাঁড়িয়ে রয়েছেন।আর কয়েক মুহূর্ত পরেই রাস্তা দিয়ে দ্রুত একটি বড় ট্রাক যেতে দেখা যাচ্ছে। এই পর্যন্ত সবই স্বাভাবিক ছিল। কিন্তু এর পরই চমকে ওঠার মতো ঘটনা অপেক্ষা করছিল। ওই ট্রাক থেকে একটি বড় পাথর লাফিয়ে পড়ে। আর সেটি সোজা রাস্তার ধারে দাঁড়িয়ে থাকা গাড়িতে গিয়ে ধাক্কা মারে। পাথরটির ওজন এতটাই বেশি ছিল যে সেটি গাড়ির সামনের অংশ দুমড়ে-মুচড়ে দেয়।

ওই ব্যক্তি যদি গাড়ির ভিতরই থাকতেন, আর সেই সময় যদি পাথরটি পড়ত, তা হলে তাঁর গুরুতর আহত হওয়ার সম্ভাবনা ছিল। এমনকি পাথরটি যদি গাড়িতে আঘাত না করে কাছেই দাঁড়িয়ে থাকা ওই বক্তির কাছে পড়ত, তবে বড় সড় চোট লাগতে পারত। কিন্তু পাথরটি গাড়িতে আঘাত করে, ওই ব্যক্তি অক্ষত রয়ে যান।

আরও পড়ুন: সৎছেলেকে বিয়ে করলেন রাশিয়ার এক সোশ্যাল মিডিয়া ইনফ্লুয়েন্সার

আরও পড়ুন: কলকাতা ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় কনটেনমেন্ট জোনগুলি দেখে নিন

আইপিএস অফিসার অরুণ বোথরা ভিডিয়োটি পোস্ট করে তার সঙ্গে একটি প্রশ্ন জুড়ে দিয়েছেন, “ভাগ্যবান না হতভাগ্য?” নিজে বেঁচে গেলেও ওই ব্যক্তির গাড়ি এ ভাবে নষ্ট হওয়ার কারণেই এই প্রশ্ন জুড়ে দিয়েছেন। কিন্তু নেটাগরিকরা তাঁর এই প্রশ্নের উত্তরে নানান দিক তুলে ধরেছেন। কেউ বলছেন “আগে প্রাণ।” কেউ লিখেছেন, "যদি তিনি গাড়ি না থামাতেন তবে কোনও কিছুরই ক্ষতি হত না।"

দেখুন সেই পোস্ট:

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন