• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

সকালেই মমতাকে ফোন মোদীর, আলোচনা বুলবুল নিয়ে, দিলেন সবরকম সাহায্যের আশ্বাস

Narendra Modi Mamata Banerjee
মমতাকে ফোন মোদীর। —ফাইল চিত্র।

Advertisement

নির্বাচনী মরসুমে এ রাজ্যে আছড়ে পড়েছিল ঘূর্ণিঝড় ফণী। সেইসময় একাধিক বার ফোন করলেও, মমতা কথা বলেননি বলে প্রকাশ্যেই অভিযোগ করেছিলেন নরেন্দ্র মোদী।  এ বার আর তা হল না। বরং ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের তাণ্ডবে রাজ্যে কতটা ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, তা নিয়ে ফোনে সবিস্তার আলোচনা হল দু’জনের মধ্যে। রাজ্য সরকারকে সবরকম সাহায্যেরও প্রতিশ্রুতিও দিলেন প্রধানমন্ত্রী।

শনিবার রাতভর উপকূল এলাকায় তাণ্ডব চালিয়েছে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। তাতে রাজ্যে কী পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে, তা জানতে রবিবার সকালেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ফোন করেন নরেন্দ্র মোদী। অনেকক্ষণ কথা হয় দু’জনের মধ্যে। তার পরেই টুইটারে মোদী লেখেন, ‘ঘূর্ণিঝড় এবং ভারী বৃষ্টির পর পূর্ব ভারতের একাধিক এলাকার পরিস্থিতি সম্পর্কে খোঁজ নিয়েছি।  সাইক্লোন বুলবুলের তাণ্ডবে এই মুহূর্তে সেখানকার পরিস্থিতি কেমন, তা নিয়ে কথা হয়েছে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে।  কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে ওঁকে সবরকম সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দিয়েছি। সকলে সুস্থ থাকুন, নিরাপদে থাকুন, এই কামনাই করি।’

রাজ্যের পরিস্থিতির দিকে সর্বক্ষণ নজর রেখেছেন বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহও। এ দিন টুইটারে তিনি লেখেন, ‘পূর্ব ভারতে সাইক্লোন বুলবুলের দাপটের দিকে নজর রেখেছি। কেন্দ্রীয় এবং রাজ্যস্তরের ত্রাণ সংগঠনগুলির সঙ্গে যোগাযোগ রেখেছি। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গেও কথা হয়েছে। সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছি। প্রতিকূলতার সঙ্গে যাঁরা যুঝছেন, তাঁদের মঙ্গল কামনা করি। ’

মোদীর টুইট।

আরও পড়ুন: যতটা গর্জাল ততটা বর্ষাল না বুলবুল, দ্রুত শক্তি হারানোয় উন্নতি আবহাওয়ার, বিপর্যয় থেকেও রক্ষা

বাংলা এবং ওড়িশায় ইতিমধ্যেই জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী নামানো হয়েছে বলেও জানান শাহ। তিনি লেখেন, ‘উদ্ধারকার্য, সড়ক পুনরুদ্ধার এবং ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার কাজে রাজ্য সরকারকে সাহায্য করতে বাংলায় জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলার ১০ বাহিনী নামানো হয়েছে। ওড়িশায় নামানো হয়েছে ৬ বাহিনী। প্রস্তুত রাখা হয়েছে আরও ১৮ বাহিনী।’

 

শাহের টুইট।

আরও পড়ুন: বুলবুলের তাণ্ডবে লন্ডভন্ড দক্ষিণ ২৪ পরগনা, উপড়ে গেল প্রচুর গাছ, নামখানায় ভাঙল জেটি​

গত দু’দিন ধরে একনাগাড়ে ভারী বৃষ্টির পর, গতকাল রাতে বাংলার স্থলভাগে আছড়ে পড়ে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। পূর্ব মেদিনীপুর, উত্তর ২৪ পরগণার বসিরহাট এবং দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলাতে ঝড়ের প্রভাব পড়েছে। তাতে বেশ কিছু গাছ উপড়ে গিয়েছে। ভেঙে পড়েছে একাধিক মাটির বাড়ি। একাধিক জায়গায় বিঘ্নিত হয়েছে বিদ্যুৎ পরিষেবাও। 

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন
বাছাই খবর

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন