• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘চিনের ল্যাবে তৈরি করোনাভাইরাস’, আমেরিকায় বসে দাবি চৈনিক বিজ্ঞানীর

Chinese virologist
লি-মেঙ্গ ইয়ান। ইউটিউব থেকে নেওয়া ছবি।

প্রায় ১০ মাস হয়ে গেল চিনের উহান হয়ে গোটা বিশ্বে করোনার দাপট অব্যাহত। টিকা বা ওষুধ কবে বাজারে আসবে তা এখনও নিশ্চিত নয়। কিন্তু করোনাভাইরাস গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ার জন্য চিনের দিকে বার বার অভিযোগের আঙুল উঠেছে। এমনকি চিন ইচ্ছে করে এই ভাইরাস গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে দিয়েছে বলেও অভিযোগ উঠেছে মাঝেমধ্যে। যদিও চিন প্রতিবারেই সেই দাবি খারিজ করার চেষ্টা করেছে। এরই মধ্যে চিনের বিড়ম্বনা বাড়িয়ে একটি ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে।

ভিডিয়োটি ডক্টর লি-মেঙ্গ ইয়ান নামে এক মহিলার। তিনি হং কংয়ের স্কুল অব পাবলিক হেল্থের একজন বিজ্ঞানী হিসেবে কাজ করতেন বলে জানিয়েছেন। বর্তমানে তিনি আমেরিকায় আশ্রয় নিয়েছেন। ইয়ানের দাবি, তাঁর কাছে প্রমাণ রয়েছে, এই ভাইরাস কোনও পশু বাজার থেকে ছড়ায়নি, এটি চিনের উহান ল্যাব থেকেই ছড়িয়েছে। এবং এটি ল্যাবেই তৈরি করা হয়েছিল।

‘আইটিভি’ নামে এক ব্রিটিশ চ্যানেলে এক স্বাক্ষাত্কার দিয়েছেন ইয়ান। তবে টিভি স্টুডিওতে যাননি, গোপন কোনও জায়গা থেকে তিনি এই স্বাক্ষাৎকার দিয়েছেন। সেখানে তিনি দাবি করেছেন, হং কংয়ে কাজ করার সময় এই ভাইরাস সম্পর্কে তিনি মুখ খোলেন। এমন কি চিন সরকার প্রকাশ্যে এই অতিমারির কথা স্বীকার করার আগে থেকেই ভাইরাস সম্পর্কে সব জানত।

আরও পড়ুন: একটি ফেস-শিল্ডের দাম প্রায় ৭০ হাজার টাকা, দেখুন কারা বানাল এটি

আরও পড়ুন: বান্ধবীকে দেওয়া রোনাল্ডোর এনগেজমেন্ট রিংয়ের দাম কত জানেন?​

ইয়ান জানিয়েছেন, তিনি উহান থেকে যে তথ্য যোগাড় করেছেন, তা গোটা বিশ্বের সামনে রাখতে চান। এমন কি চিনে থাকার সময় তাঁকে মুখ বন্ধ রাখতে বলা হয়েছিল, যদি না রাখেন তাহলে ‘গায়েব’ হয়ে যাবেন। স্বাক্ষাৎকারটি ইউটিউবে আপলোড করা হয়েছে। বাধ্য হয়ে তিনি পালিয়ে এসেছেন। এখন গোটা বিশ্বের সামনে বিষয়টি তুলে ধরতে চান।

দেখুন সেই ভিডিয়ো:

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন